ভারতীয় এক লটারি বিজেতা বলেছেন, জ্যাকপট পাওয়ার পর এতো বেশি সংখ্যক মানুষ সাহায্যের জন্য আবেদন করছেন যে, তিনি লটারি জিতে বিপদে পড়েছেন।

ভারতের দক্ষিণাঞ্চলের রাজ্য কেরালার অটোচালক অনুপ। তিনি চলতি মাসে রাজ্য সরকারের ২৫ কোটি রুপির লটারি জিতেছেন। খবর বিবিসির।  

কিন্তু এর এক সপ্তাহ পরই অনুপ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে একটি ভিডিও পোস্ট করে বলেন, অপরিচিতরা যেন তাকে এবং তার পরিবারকে বিরক্ত করা বন্ধ করে।

তিনি বলেন, আমি না জিতলেই ভালো হতো। এর চেয়ে তৃতীয় পুরস্কার পেলে ভালো হতো। 

তিনি আরও বলেন, অতি উৎসাহী জনগণের হাত থেকে বাঁচতে তিনি এখন বাসস্থান পরিবর্তনের কথা ভাবছেন। 

লটারি জেতার পর সংবাদের শিরোনামে আসেন অনুপ। গত ১৭ সেপ্টেম্বর টিকিটটি কিনেছেন তিনি। এরপর চাকরির জন্য মালয়েশিয়ায় পাড়ি জমান। পরে লটারি জেতার খবর পান। তারপর তার পরিবার গণমাধ্যমে গুরুত্ব পায়।

অনুপ বলেন, যখন আমি লটারি জেতার খবর পাই, ভীষণ খুশি হয়েছিলাম। বহু মানুষ আর ক্যামেরা বাড়িতে দেখে পুরো পরিবার খুশি হয়েছিল। কিন্তু সেই পরিস্থিতি অল্প সময়েই নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যায়।

তিনি আরও বলেন, আমি এখন ওই বাড়িতে বাস করতে পারছি না। আমি কোথাও যেতে পারছি না। আমার সন্তান অসুস্থ। কিন্তু আমি চিকিৎসকের কাছে যেতে পারছি না।

ট্যাক্স হিসেবে ১০ কোটি রুপি কেটে নেওয়ার পর অনুপকে ১৫ কোটি রুপি দেওয়া হবে। কিন্তু লটারি জেতার খবর বের হওয়ার পর থেকে প্রতিদিন সকালে অনুপের বাড়িতে লোকজন আসছে।

তিনি বলেন, আমি সবাইকে বলেছি-এখনও কোনো 'টাকা' পাইনি। 

বিড়ম্বনা এড়াতে আত্মীয়ের সঙ্গে এখন বাস করছেন অনুপ ও তার পরিবার। 

রাজ্য সরকার বলছে, অনুপকে আর্থিক ব্যবস্থাপনার বিষয়ে এক দিনের প্রশিক্ষণ দেওয়া হবে।

সম্পাদনা: শাম্মী আক্তার