কার্তিকের হলুদ রোদ বিকেলে বাড়ি পৌঁছে-
শহরে পার্সেল করে শীতের আগমনী হুহু বাতাস।
রাত ভারি হলে অভিজাত মদের মোকাম থেকে
কামরাঙ্গীর চরে পৌঁছে যায় ছকবাঁধা সুর-
সিলিং ছোঁয়ার উন্মাদনায় মেঘের পাখায় ফিরে- ঠিকানা।

ভিনদেশি পোশাকের ভাঁজে লুকিয়ে থাকে শরীর
কুয়াশায় আচ্ছন্ন চোখের ভাঁজে লুকায় মন
মদের গ্লাসে ফেরি হয় মাতাল ভালোবাসা
গোপনে চুমু খায় বেহিসেবি মুদ্রার সংখ্যা।

বেওয়ারিশ কুকুরের ডাকে, রাত ফিরে যায় নিদ্রাপাড়ায়
কামরাঙ্গীর চর জেগে উঠে ফজরের হাত ধরে, মোরগের ডাকে-
একজোড়া লাল চোখ নিয়ে জহিরের এক পশলা ঘুম
স্বপ্ন আসলে দরজায়, সাথি সাথি বলে ডাকে কলিংবেল।

বিষয় : শহরে কার্তিক নামে

মন্তব্য করুন