বোনের বাড়িতে জমির সালিশ দেখতে গিয়ে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত নড়াইলের কালিয়ার পাটেশ্বরী জামে মসজিদের ইমাম আল আমিন শেখ (২৮) শনিবার সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা গেছেন। সে উপজেলার মহিষখোলা গ্রামের আবুল হোসেন শেখের ছেলে। এই ঘটনায় কালিয়া থানায় একটি মামলা হয়েছে। এর আগে গত ১৬ ফেব্রুয়ারি সন্ত্রাসীদের হামলায় নিহত ইমামসহ ৮ জন আহত হন।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, উপজেলার মষিখোলা গ্রামের রেজাউল বিশ্বাস ও মাহাবুবুর রহমান কালুর মধ্যে দীর্ঘদিন যাবত জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। এরই মধ্যে কালু রেজাউলের উঠান দখল করে একটি শৌচাগার তৈরি করতে গেলে উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করতে থাকে। বিরোধটি  মীমাংসার জন্য গত ১৬ ফেব্রুয়ারি বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে স্থানীয়রা উভয় পক্ষকে নিয়ে সেখানে শালিস বৈঠকে বসেন। বোনের বাড়ির সালিশ বৈঠক শুনতে ও দেখতে রেজাউলের শ্যালক আল আমিন সেখানে যান। শালিস বৈঠকের এক পর্যায়ে কথা কাটাকাটির জের ধরে কালু ও তার লোকজন রেজাউলদের ওপর হামলা চালালে আল আমিনসহ আন্তত ৮ জন আহত হন। আহতদেরকে কালিয়া ও খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। এদের মধ্যে আল আমিনের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তর করার পর শনিবার সকাল ১১টার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়। ঘটনাটিতে নিহতের ভাই মো. লাহু শেখ বাদী হয়ে ২৪ জনের নাম উল্লেখসহ অঞ্জাত ৬ জনকে আসামি করে একটি মামলা করেন।

কালিয়া থানার ওসি শেখ কনি মিয়া বলেছেন, মসজিদের ইমাম হত্যার ঘটনায় একটি মামলা হয়েছে। অভিযুক্তদের ধরতে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

মন্তব্য করুন