খুলনায় মাদক মামলায় তিন আসামিকে ভিন্ন মেয়াদে সাজা দিয়েছেন আদালত। এর মধ্যে একজনকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড দেন আদালত। একই সঙ্গে তাকে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও এক বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়। অপর দুই আসামির প্রত্যেককে ৫ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ২৫ হাজার টাকা জরিমানা, অনাদায়ে আরও ৬ মাসের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার খুলনার সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মশিউর রহমান চৌধুরী এ রায় ঘোষণা করেন।

যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত যশোরের কেশবপুরের ভেরচি গ্রামের রিপন শেখ পলাতক রয়েছেন। ৫ বছরের সাজাপ্রাপ্তরা হলেন, খুলনার ডুমুরিয়ার আটালিয়া গ্রামের শাহিন মোড়ল এবং সাতক্ষীরার দেবহাটার মহিউদ্দিন মোলতা। এই দু'জনের মধ্যে শাহিন মোড়ল জেলে রয়েছেন। পলাতক রয়েছেন মহিউদ্দিন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০১৮ সালের ৬ এপ্রিল বিকালে র‌্যাব ডুমুরিয়ার চুকনগর থেকে ৩ জনকে ৪৫ গ্রাম হেরোইনসহ আটক করে। ওই দিন র‌্যাবের ডিএডি মো. অহিদুল ইসলাম বাদি হয়ে ডুমুরিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। একই বছরের ৫ সেপ্টেম্বর ডুমুরিয়া থানার এস আই মো. আশিকুল আলম ৩ জনের বিরুদ্ধে আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন। মামলায় ১১ জন স্বাক্ষ্য প্রদান করেন।

মন্তব্য করুন