নৌযান শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি ২০ হাজার টাকা করাসহ ১০ দফা দাবিতে খুলনায় শনিবার মধ্যরাত থেকে অনির্দিষ্টকালের কর্মবিরতি শুরু করেছেনি নৌযান শ্রমিকরা। নৌযান শ্রমিক সংগ্রাম পরিষদ এই কর্মবিরতি ডেকেছে।

সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, খুলনার সব নদীতে বন্ধ রয়েছে লঞ্চ, বার্জ, কার্গোসহ অন্যান্য নৌযান চলাচল। সেই সঙ্গে খুলনা নদী বন্দরের ঘাটগুলোতে কার্গো জাহাজে পণ্য লোড-আনলোডও বন্ধ রেখেছেন শ্রমিকরা।

বাংলাদেশ লঞ্চ লেবার অ্যাসোসিয়েশনের সাংগঠনিক সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন জানান, দ্রব্যমূল্য লাগামহীনভাবে বাড়লেও নৌযান শ্রমিকদের মজুরি বাড়েনি। ফলে নৌযান শ্রমিকরা সংসার চালাতে হিমশিম খাচ্ছেন। সরকারের বিভিন্ন সংস্থা নৌযানের কাগজপত্র দেখার নামে হয়রানি করছে।

তিনি বলেন, কর্মরত অবস্থায় কোনো শ্রমিকের মৃত্যু হলে তার পরিবারকে ১০ লাখ টাকা প্রদান করতে হবে। নদী-চ্যানেল খনন করে গভীরতা ও প্রস্থ বাড়াতে হবে। মোট ১০ দফা দাবিতে তারা এই কর্মবিরতি পালন করছেন।