ক্যাসিনোকাণ্ডে গ্রেপ্তার বহিস্কৃত যুবলীগ নেতা এসএম গোলাম কিবরিয়া ওরফে জি কে শামীম ও তার সাত দেহরক্ষীর বিরুদ্ধে অস্ত্র মামলায় বাদী র‌্যাব-১-এর নায়েক সুবেদার জেসিও মিজানুর রহমান ও জব্দ তালিকা প্রস্তুতকারী পুলিশের এসআই কমল কুমার সাহা সাক্ষ্য দিয়েছেন।

বুধবার ঢাকার তৃতীয় অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ মো. রবিউল আলমের আদালতে তারা সাক্ষ্য দেন। আদালত ১০ ডিসেম্বর সাক্ষ্যগ্রহণের পরবর্তী দিন ধার্য করেন।

গত বছরের ২০ সেপ্টেম্বর গুলশানের নিজ কার্যালয়ে সাত দেহরক্ষীসহ গ্রেপ্তার হন জি কে শামীম। পরে তার বিরুদ্ধে অস্ত্র, মাদক ও অর্থ পাচার আইনে তিনটি মামলা করা হয়। এ ছাড়া গত বছরের ২১ অক্টোবর জি কে শামীমের বিরুদ্ধে অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলা করে দুর্নীতি দমন কমিশন। মামলায় জি কে শামীম অবৈধ উপায়ে মোট ২৯৭ কোটি আট লাখ ৯৯ হাজার ৫৫১ টাকার জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন করেছেন বলে অভিযোগ আনা হয়। এসব মামলায় একাধিকবার তাকে রিমান্ডে নেওয়া হয়েছে।

গত বছরের ২৭ অক্টোবর র‌্যাব-১-এর এসআই শেখর চন্দ্র মল্লিক আসামিদের বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। গত ২৮ জানুয়ারি আদালত আসামিদের অব্যাহতির আবেদন নাকচ করে অভিযোগ গঠন করেন।