অনেকেই ভাবেন, গ্রিন টি পান করলেই ওজন কমে। কিন্তু গ্রিন টি কিভাবে ও ঠিক কোন সময় পান উচিত, সে ব্যাপারে অনেকেরই স্পষ্ট ধারণা নেই। অনেকেই সকালে ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে গ্রিন টি পান করেন। আবার অনেকে ভাবেন যে বেশি বেশি গ্রিন টি পান করলেই দ্রুত শরীরের ওজন কমানো সম্ভব। কিন্তু এসব ধারণা সম্পূর্ণ ভুল ও শরীরের পক্ষেও ভালো নয়।

পুষ্টিবিদদের মতে, সকালে ঘুম থেকে ওঠার পরই চা পান করলে শরীরে ডিহাইড্রেশন ও গ্যাস্ট্রিক আলসারের সমস্যা তৈরি হতে পারে। তাই সকালে স্বাস্থ্যকর নাস্তা খাওয়ার পর গ্রিন টি পান করা যেতে পারে। অনেকে আবার দুপুরে খাওয়ার পরই কিংবা তার আগে গ্রিন টি পান করেন। তাতে বিশেষ উপকার হয় না। গ্রিন টিয়ের উপকারিতা ভালোভাবে পেতে হলে খাওয়ার অন্তত ৪৫ মিনিট থেকে ১ ঘণ্টা পর বা আগে তা পান করা উচিত।

শরীরে ওজন কমানোর জন্য রাতে ঘুমোনোর ঘণ্টা দুয়েক আগেও গ্রিন টি পান করা যেতে পারে। আবার ব্যায়াম করার আধাঘণ্টা আগে গ্রিন টি পান করলেও উপকার পাওয়া যায়।

এক্ষেত্রে ঠিক কতটা পরিমাণ খেতে হবে, তাও জানা জরুরি। ওহায়ো বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি সাম্প্রতিক গবেষণা বলছে, পানির মতো করে বেশি বেশি গ্রিন টি পান করা উচিত নয়।

গ্রিন টি বানানোর নিয়ম: ৫ গ্রাম বা এক চা চামচ গ্রিন টি নিতে হবে। তারপর পানি গরম করে স্টিল বা কাচের পাত্রে কিছুক্ষণ রেখে সামান্য ঠান্ডা করে নেওয়া জরুরি। এরপর তাতে চা পাতা যোগ করে ৩ মিনিট ঢেকে রেখে দিতে হবে। চা পাতা পুরোপুরি ভিজে গেলে তা পান করতে হবে। কেউ চাইলে দারচিনি গুঁড়া, এলাচ গুঁড়া, আমলা গুঁড়া দিতে পারেন। এর সঙ্গে আমলার রস বা আদার রসও দেওয়া যেতে পারে। সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা