প্রচণ্ড গরমে ঘর ঠান্ডা করার জন্য সবাই এসির কতা চিন্তা করেন। কিন্তু অনেকেরই হযতো জানা উষ্ণ আবহাওয়ায় ঘরের ভিতর কিছু গাছ লাগালেও ঘরের উষ্ণতা কমতে পারে। এসব গাছপালা যে শুধু প্রাকৃতিক প্রক্রিয়ার মধ্যে দিয়ে ঘরকে ঠান্ডা রাখে তা-ই নয়, এই ধরনের গাছপালা ঘরের বাতাসে আর্দ্রতা যোগ করতেও সহায়তা করে।

যুক্তরাষ্ট্রের ভারমন্ট বিশ্ববিদ্যালয়ের একটি গবেষণা বলছে, ঘরে সঠিক গাছপালা থাকলে ঘরেরর তাপমাত্রা প্রায় ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত কমাতে পারে। যেমন-

অ্যালোভেরা : অ্যালো ভেরা বা ঘৃতকুমারী অতি পরিচিত একটি উদ্ভিদ। অসংখ্য ওষুধি গুণসম্পন্ন অ্যালোভেরা বাতাস থেকে বিষাক্ত পদার্থ শোষণ করতেও সহায়তা করে। পাশাপাশি তাপ ও অক্সিজেনের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখতেও ভূমিকা রাখে।

ছোট রাবার গাছ : রাবার গাছ পরিবেশ থেকে প্রচুর পরিমাণে কার্বন ডাই অক্সাইড শোষণ করে। অতিরিক্ত কার্বন ডাই অক্সাইড দীর্ঘ ক্ষণ তাপ ধরে রাখতে সক্ষম। ঘরে কার্বন ডাই অক্সাইডের পরিমাণ বেড়ে গেলে ঘর দ্রুত গরম হয়ে যায়। ঘরের অক্সিজেন এবং উষ্ণতার মাত্রা বজায় রাখতে রাবার গাছ দারুন কার্যকর।

মানি প্ল্যান্ট : বিশেষজ্ঞদের মতে, বাতাস বিশুদ্ধ করতে মানি প্ল্যান্ট খুবই কার্যকর। গোল্ডেন পোথোস বা মানি প্ল্যান্ট বাতাস থেকে একাধিক বিষাক্ত পদার্থ দূর করতে পারে।

এরিকা পাম : বাড়িতে জায়গার অভাব না থাকলে বসার ঘরে রাখতে পারেন এরিকা পাম। এটি তাল গাছের মতোই দেখতে। অরেকা পাম এক দিকে ঘর ঠান্ডা রাখে, আবার দেখতেও ভাল লাগে। শুধু বাড়ি নয়, এই গাছটি হোটেল, অফিস এবং অন্যান্য উন্মুক্ত স্থানে সাজাতেও ব্যবহৃত হয় এই গাছ।

স্নেক প্ল্যান্ট : এখন অনেকই বাড়িতে স্নেক প্ল্যান্ট লাগান। এই গাছটিও ঘরের তাপমাত্রা কমাতে সাহায্য করতে পারে। এই গাছ অক্সিজেনের মাত্রা বৃদ্ধি করে। শোওয়ার ঘর বা বসার জায়গাতে রাখার জন্য এই গাছটি বেশ মানানসই।