দেশের প্রথিতযশা রাজনীতিক, লেখক, কবি-সাহিত্যিক, শিল্পী ও সংস্কৃতিজনের মিলনমেলা হয়ে উঠেছিল সমকাল আয়োজিত শুক্রবারের আনন্দ সমাবেশ ও ইফতারসন্ধ্যা। সমকালের ঈদসংখ্যা ২০২২-এর প্রকাশ উপলক্ষে ঢাকা ক্লাবের স্যামসন এইচ চৌধুরী হলে এ সমাবেশ হয়।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন টাইমস মিডিয়া লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এ. কে. আজাদ। স্বাগত বক্তব্য দেন সমকালের ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক মোজাম্মেল হোসেন মঞ্জু। শুভেচ্ছা বক্তব্য দেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী, প্রধানমন্ত্রীর জ্বালানিবিষয়ক উপদেষ্টা তৌফিক-ই-ইলাহী চৌধুরী বীরবিক্রম, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও ড. আব্দুল মঈন খান, সিপিবির সাবেক সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম এবং কবি আসাদ চৌধুরী। উপস্থিত ছিলেন সমকালের উপদেষ্টা সম্পাদক আবু সাঈদ খান ও প্রকাশক আবুল কালাম আজাদ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সমকালের ফিচার সম্পাদক মাহবুব আজীজ।

শুভেচ্ছা বক্তব্যে বক্তারা বলেন, দেশের সমসাময়িক দৈনিকগুলোর মধ্যে সমকাল অনন্য। সমকালের ঈদসংখ্যাও কালের অনন্য, বিশ্বস্ত দলিল। মানসম্পন্ন, বস্তুনিষ্ঠ মননশীল লেখার পাশাপাশি সৃজনশীল গল্প, কবিতা ও উপন্যাসসমৃদ্ধ এই ঈদসংখ্যার জন্য পাঠকরা প্রতিবছরই অপেক্ষায় থাকেন। ভার্চুয়াল প্ল্যাটফর্মের যতই বিকাশ ঘটুক, ছাপা বই এবং দৈনিকের ঈদসংখ্যার গুরুত্ব কমবে না বলেও মন্তব্য করেন তারা। অতিথিরা এ ধরনের আনন্দ সমাবেশের আয়োজন করায় সমকাল কর্তৃপক্ষকে ধন্যবাদ জানান।

অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন হাসনাত আবদুল হাই, আনোয়ারা সৈয়দ হক, খালিকুজ্জামান ইলিয়াস, সৈয়দ মনজুরুল ইসলাম, মাকিদ হায়দার, আবিদ আনোয়ার, আবুল আহসান চৌধুরী, সুশান্ত মজুমদার, মঈনুল আহসান সাবের, কামাল চৌধুরী, ফয়জুল লতিফ চৌধুরী, আন্দালিব রাশদী, শাকুর মজিদ, নাসরীন জাহান, ইমতিয়ার শামীম, অদিতি মহসিন, বিমল গুহ, মাশরুর আরেফিন, মানস চৌধুরী, ইরাজ আহমেদ, শাহনাজ মুন্নী, আলফ্রেড খোকন, কামরুজ্জামান কামু, সোহরাব হাসান, সৈয়দ ইশতিয়াক রেজা, নাজিব তারেক, আনিসুজ্জামান সোহেলসহ প্রায় দেড়শ লেখক, কবি-সাহিত্যিক, সংগীতশিল্পী ও সংস্কৃতিজন।