ফল শরীরে জন্য অত্যন্ত উপকারী। চিকিৎসকরা বলেন, প্রতি দিনের খাদ্যতালিকায় অন্তত একটি করে ফল রাখা প্রয়োজন। বিশেষ করে মৌসুমি ফল খাওয়ার অভ্যাস অত্যন্ত স্বাস্থ্যকর। বিভিন্ন ধরনের ফলে শরীরে ভিটামিন, খনিজ, ফাইবার, কার্বোহাইড্রেটের মতো প্রয়োজনীয় উপাদান পাওয়া যায়।  তবে ফল শরীরের জন্য উপকারী হলেও নির্দিষ্ট কিছু ফল একসঙ্গে খেলে তা স্বাস্থ্যের উপর ক্ষতিকারক প্রভাব ফেলে। স্বাস্থ্যঝুঁকি এড়াতে যেসব ফল একসঙ্গে খাওয়া ঠিক নয়-

কলা এবং আম : আম খেলে এমনিতেই গ্যাস বাড়ার আশঙ্কা থাকে। বিশেষ করে আম যদি টক হয় তা হলে আরও সমস্যা হয়। কলা খেলেও কারও কারও এই সমস্যা দেখা যায়। আম এবং কলা একসঙ্গে খেলে গ্যাস, বদহজমের মতো সমস্যা বড় আকারে দেখা দিতে পারে।

আঙুর এবং খেজুর : আঙুর এমনিতে শরীরের জন্য খুবই উপকারী। তবে বেশি খেলে গ্যাসের সমস্যা বাড়ে। আঙুরের সঙ্গে খেজুর খেলে এই সমস্যা আরও বেড়ে যায়। এ কারণে  আঙুর এবং খেজুর একসঙ্গে খাওয়া ঠিক নয়।

পেয়ারা এবং কলা : পেয়ারাতে অ্যাসিড জাতীয় উপাদান থাকে। অন্য দিকে কলাতে শকর্রার পরিমাণ বেশি। শর্করার আর অ্যাসিড একসঙ্গে হলে গ্যাস, বদহজম, মাথা ঘোরা, এমনকি ক্লান্তির মতো শারীরিক অসুস্থতা দেখা দিতে পারে।

তরমুজ এবং অন্যান্য ফল : তরমুজে প্রচুর পরিমাণে পানি রয়েছে। হজমশক্তি উন্নত করতে সাহায্য করে তরমুজ। তরমুজের সঙ্গে অন্য কোনও ফল খেলে হজমে ব্যাঘাত ঘটতে পারে।

পেঁপে এবং লেবু : অনেকেই পেঁপের উপর লেবুর রস ছড়িয়ে খান। এতে স্বাদ অনেক গুণ বেড়ে গেলেও এই দুটি ফল একসঙ্গে খাওয়া ঠিক নয়। এতে রক্তাল্পতা এবং হিমোগ্লোবিনের ভারসাম্যহীনতা দেখা দিতে পারে।

গাজর এবং কমলালেবু
: এই দুটি ফলই শরীরের জন্য অত্যন্ত স্বাস্থ্যকর। তবে গাজর এবং কমলালেবু একসঙ্গে খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য অত্যন্ত বিপজ্জনক। এতে গ্যাস, কিডনির সমস্যা দেখা দিতে পারে।