স্বাধীনতা পুরস্কারের জন্য ঘোষিত নামের তালিকা থেকে মো. আমির হামজার নাম বাদ দিয়েছে সরকার। এ প্রসঙ্গে মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক বলেছেন, ‘দায়িত্ব পালনে ব্যর্থতা রয়েছে। ভুলত্রুটি হয়েছে। এটা যৌথ ব্যর্থতা, কমিটির ব্যর্থতা।’

বুধবার মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ে অনুষ্ঠিত স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবোবে এ কথা বলেন তিনি।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রী বলেন, ‘যারা ভুল তথ্য দিয়েছেন, তারাও এটার সঙ্গে জড়িত। তারা আমাদের বিভ্রান্ত করেছেন। যারা বিভ্রান্ত করেছেন, তাদের শাস্তি হবে। যেহেতু একটি কমিটি রয়েছে, সেহেতু কমিটিই বৈঠক করে এ ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবে।’

এ বছর সাহিত্যে স্বাধীনতা পুরস্কারের জন্য মরহুম মো. আমির হামজার নাম ঘোষণা করা হয়েছিল। কিন্তু সাহিত্যজগতে একেবারেই অপরিচিত ও খুনের মামলার আসামি মাগুরার আমির হামজাকে নিয়ে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ বিভিন্ন মহলে সমালোচনা শুরু হয়। এ প্রেক্ষাপটে গত শুক্রবার তার নামটি বাদ দিয়ে স্বাধীনতা পুরস্কারের সংশোধিত তালিকা প্রকাশ করে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ।