পৃথিবীর অনেক দেশে মাছ বা মাছজাতীয় জলজ সম্পদ থেকে বিভিন্ন বেকারি পণ্য তৈরি হচ্ছে। কিন্তু বাংলাদেশে মাছের তেমন বহুমুখীকরণ নেই। ফলে মাছের পুষ্টিগুণ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে শিশুসহ অনেকে। প্যাকেজিং সমস্যার কারণে মাছের পণ্য বাজারজাতে সমস্যায় পড়েন বলে দীর্ঘদিনের অভিযোগ। এবার সেই সমস্যা দূর করতে গবেষণা করেছে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) ফিশারিজ বিভাগের একটি গবেষণা দল। তেলাপিয়া, পাঙাশ ও বিভিন্ন সামুদ্রিক মাছ থেকে তৈরি হবে ফিশবল, ফিশ সসেজ ও চিপস। এ পণ্য তাজা রাখতে করা হবে ভ্যাকুয়াম এবং মডিফাইড এটমোস্ম্ফিয়ার প্যাকেজিং। এতে পণ্যের স্থায়িত্বকাল বাড়বে। এমন পাঁচটি পণ্য উদ্ভাবন করেছে গবেষণা দলটি।

আজ বুধবার রাজধানীর বাংলাদেশ কৃষি গবেষণা কাউন্সিল মিলনায়তনে এক কর্মশালায় রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ফিশারিজ বিভাগের অধ্যাপক ও গবেষণা দলের প্রধান ড. মো. তারিকুল ইসলাম বলেন, আর্থসামাজিক উন্নয়নের সঙ্গে সঙ্গে দেশের মানুষের খাদ্যাভ্যাসও পরিবর্তন হচ্ছে। এখন শহরের ব্যস্ত মানুষ কাঁচা উপাদানের পরিবর্তে তাৎক্ষণিক রান্না কিংবা খাওয়ার উপযুক্ত খাদ্য খোঁজেন। এ রকম কিছু খাবারের জন্য তারা সুপারশপে যান। কিন্তু বাজারে মাংসের তৈরি নাগেট, মিটবল, পপকর্ণ, বার্গার, সমুচা ও সিঙাড়া থাকলেও মাছের পণ্য তেমন দেখা যায় না। ফলে আমরা মাছের পাঁচ রকম পণ্য উদ্ভাবন করেছি। এর মধ্যে তাৎক্ষণিক রান্নার উপযোগী চারটি এবং তাৎক্ষণিক খাওয়ার উপযোগী একটি। পাঙাশ ও টুনা মাছ দিয়ে ফিশবল; পাঙাশ ও ম্যাকারেল (সামুদ্রিক মাছ) দিয়ে ফিশ সসেজ; তেলাপিয়া ও হোয়াইট স্ন্যাপার (সামুদ্রিক মাছ) দিয়ে ব্যাটারড অ্যান্ড ব্রেডেড ফিশ এবং সারডাইন (সামুদ্রিক মাছ) দিয়ে ফিশ মেরিনেডস তৈরি হবে- যা তাৎক্ষণিক রান্নার উপযোগী পণ্য। এ ছাড়া তেলাপিয়া ও টুনা মাছ দিয়ে তৈরি হবে চিপস।

তিনি বলেন, ভ্যাকুয়াম ও মডিফাইড এটমোস্ম্ফিয়ার (এমএপি) প্যাকেজিং পদ্ধতিতে এসব পণ্য রাখা হবে। এতে তাৎক্ষণিক রান্নার উপযোগী চারটি পণ্য ১৬ থেকে ৩৫ দিন নরমাল ফ্রিজে টাটকা থাকবে। চিপসের মেয়াদ থাকবে ছয় মাস। দেশে খাদ্য প্রস্তুতকারীরা এ প্যাকেজিং পদ্ধতি ব্যবহার করে মৎস্যজাত পণ্য খুচরা বাজারজাতে নতুন দিগন্তের সূচনা করতে পারবেন বলে মনে করেন তিনি।

ড. তারিকুল বলেন, এমএপি প্যাকেজিং পদ্ধতি বাংলাদেশে প্রথম। এ প্যাকেজিং প্রক্রিয়ায় নাইট্রোজেন, কার্বন ডাইঅক্সাইড বা অক্সিজেন গ্যাসের মিশ্রণ বিভিন্ন অনুপাতে ব্যবহার করা হয়।

বিষয় : মাছের ফিশবল মাছের চিপস মাছের পুষ্টিগুণ

মন্তব্য করুন