ভারত নারী দলের সর্বকালের সেরা পেসার ঝুলন গোস্বামী। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডে দিয়ে দুই দশকের ক্যারিয়ারকে বিদায় জানিয়েছেন তিনি। বিদায়বেলায় তার নামের পাশে জ্বলজ্বল করছে অনেক রেকর্ড-কীর্তি। তবে অর্জনে ভরা ক্যারিয়ারে একটি আক্ষেপ বেশ পোড়াচ্ছে ভারতীয় এই পেসারকে। খুব কাছে গিয়েও বিশ্বকাপ জিততে না পারার হতাশায় পুড়ছে ঝুলন গোস্বামী।

ইংল্যান্ডের বিপক্ষে ভারতের চলতি ওয়ানডে সিরিজের তৃতীয় ও শেষ ম্যাচ দিয়ে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট থেকে অবসরে গেলেন ঝুলন। লর্ডসে শনিবারের লড়াই দিয়ে শেষ হয়েছে তার ২০ বছরের পথচলা।

খেলার শুরুতে একটি স্মারক দিয়ে সংবর্ধনা দেওয়া হয়। ইসিবি ইংলিশ খেলোয়াড়দের স্বাক্ষরিত একটি জার্সি উপহার দেয়। ভারতীয় অধিনায়ক হরমনপ্রীত কৌরও ঝুলনকে টসের সময় নিয়ে যান।

ম্যাচপরবর্তী অনুষ্ঠানে হরমনপ্রীত উল্লেখ করেছেন, ঝুলন কেবল ভালো সময়েই নয়, যখন খারাপ সময়ের মধ্য দিয়ে গেছেন তখনও তাকে সমর্থন দিয়েছেন।

হরমনপ্রীত বলেন, 'যখন আমার অভিষক হয় তখন তিনি অধিনায়ক ছিলেন, আমার সেরা সময়ে অনেকেই আমাকে সমর্থন করেছিলেন। এমনকি আমার কঠিন সময়ে তিনি সমর্থন করেছিলেন। আমি তাকে ধন্যবাদ জানাতে চাই এবং তাকে বলতে চাই, যে তিনি সর্বদা আমাদের সাথে আছেন। তিনি সবসময় আমাকে গাইড করেন।'

ঝুলন বলেন, 'বিসিসিআই ও ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন অব বেঙ্গলকে ধন্যবাদ আমাকে আমার পাশে থাকার জন্য। আমি ২০০২ সালে ইংল্যান্ডের বিপক্ষে শুরু করেছি, ইংল্যান্ডেই শেষ করেছি। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হলো আমরা সিরিজে ২-০ এগিয়ে আছি।'

২০ বছরের ক্যারিয়ারে টেস্টে ১২ ম্যাচে ৪৪ উইকেট, ওয়ানডেতে ২০৪ ম্যাচে ২৫৫ উইকেট ও টি-টোয়েন্টিতে ৬৮ ম্যাচে নিয়েছেন ৫৬ উইকেট। নারী টি-টোয়েন্টিতে সর্বকালের সর্বোচ্চ উইকেটশিকারী ঝুলন। আর কোনো বোলার ২০০ উইকেটও নিতে পারেননি।

বিদায়বেলায় সবাইকে ধন্যবাদ জানিয়েছেন ঝুলন, 'আমি বিসিসিআইকে ধন্যবাদ দিতে চাই। ধন্যবাদ দিতে চাই আমার সতীর্থ, কোচ, অধিনায়কসহ সবাইকে। আমাকে আজ এ সুযোগ দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ। এটা সত্যিই আমার জন্য একটা বিশেষ মুহূর্ত।'