ঢাকা শনিবার, ১৮ মে ২০২৪

জবি ছাত্রলীগের কমিটি স্থগিত

জবি ছাত্রলীগের কমিটি স্থগিত

ফাইল ছবি

জবি সংবাদদাতা

প্রকাশ: ০১ জুলাই ২০২২ | ১৩:৪৪ | আপডেট: ০১ জুলাই ২০২২ | ১৩:৪৪

বিভিন্ন অভিযোগের প্রেক্ষিতে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় (জবি) ছাত্রলীগের কমিটি স্থগিত করেছে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ। শুক্রবার দুপুরে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় ও সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে কমিটি স্থগিতের বিষয়টি জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় নির্বাহী সংসদের জরুরি সিদ্ধান্ত মোতাবেক জানানো যাচ্ছে, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত ছাত্রলীগ জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সব সাংগঠনিক কার্যক্রম স্থগিত করা হলো। তবে এতে সাংগঠনিক কার্যক্রম স্থগিতের কারণ উল্লেখ করা হয়নি। এ বিষয়ে আল নাহিয়ান খান জয় ও লেখক ভট্টাচার্যকে একাধিকবার ফোন করেও তারা রিসিভড করেননি।

কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের দপ্তর সম্পাদক ইন্দ্রনীল দেব শর্মা বলেন, জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় শাখা ছাত্রলীগের প্রতি কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের কিছু নির্দেশনা ছিল। কিন্তু দীর্ঘদিনেও তারা সেটি পালন করেনি। এ ছাড়া তাদের নামে একাধিক অভিযোগ আসে কেন্দ্রে। এর প্রেক্ষিতে শাখা ছাত্রলীগের কার্যক্রম স্থগিত করা হয়েছে।

গত রোববার ওয়ারীতে জবির শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম হলের কাছে বিশ্ববিদ্যালয়ের সংগীত বিভাগের ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষের এক শিক্ষার্থী রাষ্ট্রপতির ছেলের গাড়িচালককে মারধর করেন বলে অভিযোগ ওঠে। সোমবার সন্ধ্যায় ওয়ারী থানায় অজ্ঞাত কয়েকজনকে আসামি করে মামলা করেন ভুক্তভোগী চালক নজরুল ইসলাম। এ ঘটনায় কমিটি স্থগিত করা হয়েছে বলে দিনভর আলোচনা ছিল।

তবে জবি ছাত্রলীগের শীর্ষ দুই নেতার বিরুদ্ধে কয়েকটি গুরুতর অভিযোগ ওঠায় কমিটি স্থগিত করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ছাত্রলীগের কয়েকজন কেন্দ্রীয় নেতা। তারা বলেন, ইব্রাহীম ও আকতারকে সভাপতি-সম্পাদক করে কমিটি ঘোষণার পর থেকেই পুরান ঢাকায় তারা বেপরোয়া চাঁদাবাজি শুরু করেছে।

আরও যেসব অভিযোগ রয়েছে তার মধ্যে ছাত্রলীগের নারী যুগ্ম সাধারণ সম্পাদককে কুপ্রস্তাব, বিশ্ববিদ্যালয়ের কাজ নেওয়ার জন্য প্রশাসনকে চাপ দেওয়া, জামায়াত নেতা মীর কাশেম আলীর প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে টেন্ডারবাজি অন্যতম।

আরও পড়ুন

×