বিএনপির রেকর্ড হচ্ছে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করা: ড. মোশাররফ

প্রকাশ: ০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯      

সমকাল প্রতিবেদক

ফাইল ছবি

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেছেন, বিএনপির রেকর্ড হচ্ছে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করা। তিনি বলেন, ১৯৭২ সালে আওয়ামী লীগ গণতন্ত্র হত্যা করেছে, ২০১৪ সালের ৫ জানুয়ারি ও ২০১৮ সালের ২৯ ডিসেম্বর তারা গণতন্ত্র হত্যা করেছে। অন্যদিকে বিএনপির প্রতিষ্ঠাতা জিয়াউর রহমান দেশে বহুদলীয় গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছে, দলের চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া স্বৈরাচারের হাত থেকে দেশকে রক্ষা করে এদেশে সংসদীয় গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা করেছে।

সোমবার মহিলা দলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষ্যে আয়োজিত বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রার আগে দেওয়া বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন। শোভাযাত্রাটি নয়া পল্টনের কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে শুরু করে কাকরাইল মোড় ঘুরে আবার কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়।

জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় খন্দকার মোশাররফ হোসেন বলেন, জিয়াউর রহমান অবৈধ রাষ্ট্রপতি ছিলেন না। ১৯৭৮ সালের জুন মাসে সাধারণ নির্বাচনে জনগণের ভোটে নির্বাচিত রাষ্ট্রপতি ছিলেন।

তিনি বলেন, সরকারের যাতাকলে দেশ-জাতি নিষ্পেষিত। অর্থনীতি ধ্বংস, ব্যাংকগুলো লুট হয়ে গেছে, সামাজিক অশান্তি, নারী-শিশু নির্যাতন চলছে, বালিশ-পর্দার কেলেঙ্কারির ঘটনার সৃষ্টি হয়েছে।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, জিয়াউর রহমান বৈধতার প্রতীক, গণতন্ত্রের প্রতীক, মুক্ত মনে কথা বলার প্রতীক, সংবাদপত্রের স্বাধীনতার প্রতীক।

শোভাযাত্রায় মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাসসহ কমিটির নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।