ঢাকায় তাপসের আসনে মহিউদ্দিন, চসিকে নাছিরের বদলে রেজাউল

প্রকাশ: ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০     আপডেট: ১৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০   

সমকাল প্রতিবেদক

শনিবার রাতে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সভায় বোর্ড সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন-ফোকাস বাংলা

শনিবার রাতে গণভবনে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সভায় বোর্ড সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন-ফোকাস বাংলা

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের সদ্যনির্বাচিত মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপসের ছেড়ে আসা ঢাকা-১০ আসনের উপ-নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন পেলেন এফবিসিসিআইয়ের সাবেক সভাপতি শফিউল ইসলাম মহিউদ্দিন। 

অন্যদিকে চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন (চসিক) নির্বাচনের মেয়র পদে দলীয় মনোনয়ন থেকে বাদ পড়লেন বর্তমান মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন। তার জায়গায় ক্ষমতাসীন দল এবার বেছে নিয়েছে চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক রেজাউল করিম চৌধুরীকে। ফলে চসিকে মেয়র পদে মনোনয়ন পাওয়া নিয়ে গত কয়েকদিন ধরে চলা গুঞ্জনের অবসান হলো।

এছাড়া গাইবান্ধা-৩ আসনে কৃষক লীগের সাধারণ সম্পাদক উম্মে কুলসুম স্মৃতি, বাগেরহাট-৪ আসনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদ সদস্য ও বাগেরহাটের মোড়েলগঞ্জ উপজেলা সভাপতি অ্যাডভোকেট আমিরুল আলম মিলন, বগুড়া-১ আসনে প্রয়াত এমপি আবদুল মান্নানের স্ত্রী শাহাদারা মান্নান এবং যশোর-৬ আসনের উপ-নির্বাচনে যশোর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান শাহীন চাকলাদারকে নৌকার প্রার্থী করা হয়েছে।

শনিবার রাতে গণভবনে আওয়ামী লীগের সংসদীয় বোর্ড ও স্থানীয় সরকার মনোনয়ন বোর্ডের যৌথসভায় সর্বসম্মতভাবে এই ছয় প্রার্থীর মনোনয়ন চূড়ান্ত করা হয়। প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে সভায় বোর্ড সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

যৌথসভা শেষে প্রেস ব্রিফিংয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের দলীয় প্রার্থীদের নাম ঘোষণা করেন। 

তিনি বলেন, দলীয় মনোনয়নপ্রত্যাশীদের মধ্য থেকে যাচাই-বাছাই শেষে যোগ্য ও জনপ্রিয় এবং জয়লাভে সক্ষমদেরই প্রার্থী করা হয়েছে।

যৌথসভায় চসিক নির্বাচনের ৪১টি সাধারণ ওয়ার্ড কাউন্সিলর এবং ১৪টি সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর পদে দলসমর্থিত প্রার্থী বিষয়ে আলোচনা হলেও সিদ্ধান্ত হয়নি। বুধবার বিকেলে যৌথসভায় এসব নাম চূড়ান্ত করা হবে।

এ প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের বলেন. কাউন্সিলর পদের মনোনয়নপ্রত্যাশীদের মধ্য থেকে প্রার্থী চূড়ান্ত করতে নেত্রী (শেখ হাসিনা) নিজে যাচাই-বাছাই করছেন। গোয়েন্দা রিপোর্ট দেখছেন। সবকিছু দেখে স্বচ্ছ ও পরিচ্ছন্ন ইমেজের নেতাদেরই কাউন্সিলর পদে সমর্থন দেওয়া হবে।

সন্ধ্যায় যৌথসভা শুরু হলে শূন্য হওয়া পাঁচটি সংসদীয় আসনের উপ-নির্বাচন এবং চসিক নির্বাচনের মেয়র ও কাউন্সিলর পদে মনোনয়নপ্রত্যাশীদের সাক্ষাৎকার নেওয়া হয়। এ সময় দল থেকে যাকেই প্রার্থী করা হোক না কেন, তার পক্ষেই ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার প্রতিশ্রুতি দেন মনোনয়নপ্রত্যাশীরা।

পরে যৌথসভার বিরতিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বক্তব্য দেন। তার বক্তব্য শেষে আবারও যৌথসভা শুরু হলে পাঁচটি সংসদীয় আসনের উপ-নির্বাচন ও চসিক নির্বাচনের দলীয় প্রার্থী চূড়ান্ত করা হয়।

শুক্রবার পর্যন্ত চলেছে পাঁচটি আসনের উপ-নির্বাচন ও চসিক নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশীদের দলীয় মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ ও জমা দেওয়ার কাজ। পাঁচটি আসনের উপ-নির্বাচনে ৭৮ জন প্রার্থী মনোনয়ন ফরম জমা দেন। অন্যদিকে চসিক নির্বাচনে মেয়র পদে ২০ জন এবং কাউন্সিলর পদে ৪০৬ জন দলের মনোনয়ন ফরম জমা দেন।

ঢাকা-১০, গাইবান্ধা-৩ এবং বাগেরহাট-৪ আসনের উপ-নির্বাচন আগামী ২১ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে। ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপসের পদত্যাগের কারণে ঢাকা-১০ আসনটি শূন্য হয়েছে। অন্যদিকে আওয়ামী লীগের সংসদ সদস্য ইউনূস আলী সরকারের মৃত্যুতে গাইবান্ধা-৩ ও মোজাম্মেল হোসেনের মৃত্যুতে বাগেরহাট-৪ আসন শূন্য ঘোষণা করা হয়েছে।

এছাড়া সরকারদলীয় সংসদ সদস্য আবদুল মান্নানের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া বগুড়া-১ ও ইসমাত আরা সাদেকের মৃত্যুতে শূন্য হওয়া যশোর-৬ আসনের উপ-নির্বাচন এবং মেয়াদ উত্তীর্ণের পথে থাকা চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনের রোববার তফসিল ঘোষণা করা হবে।