করোনা মোকাবিলায় সমন্বিত জাতীয় উদ্যোগ চায় গণসংহতি আন্দোলন

প্রকাশ: ০৫ মে ২০২০   

সমকাল প্রতিবেদক

অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে নেতারা- সমকাল

অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে নেতারা- সমকাল

করোনার মহাদুর্যোগ মোকাবিলায় অবিলম্বে সমন্বিত জাতীয় উদ্যোগ গ্রহণের জন্য সরকারের প্রতি দাবি জানিয়েছে গণসংহতি আন্দোলন। 

দলটি বলেছে, বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলোর পক্ষ থেকে বারবার এই দাবি তোলা সত্ত্বেও সরকার এখনো ‘একলা চলো’ নীতি বাস্তবায়ন করে চলেছে। নিজেদের চরম দায়িত্বহীনতা ও ব্যর্থতা জনগণের ওপর চাপিয়ে দিচ্ছে। 

মঙ্গলবার গণসংহতি আন্দোলনের উদ্যোগে ‘করোনা পরিস্থিতি বর্তমান বাস্তবতা এবং উত্তরণের পথ’ শীর্ষক অনলাইন সংবাদ সম্মেলনে আরও বলা হয়, এই মুহূর্তে বিভিন্নস্থানে জনগণের ব্যাপক বৃহত্তর ঐক্য গড়ে তুলতে হবে। ঐক্যবদ্ধ জনমতের চাপেই সরকারকে দাবি মানতে বাধ্য করতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য উপস্থাপন করেন গণসংহতি আন্দোলনের নির্বাহী সমন্বয়কারী (ভারপ্রাপ্ত) আবুল হাসান রুবেল। অনলাইনে সংবাদ সম্মেলনে যোগ দেন দলের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, কেন্দ্রীয় নেতা তাসলিমা আখতার, দেওয়ান আব্দুর রশিদ নিলু, হাসান মারুফ রুবেল ও জুলহাসনাইন বাবু।

লিখিত বক্তব্যে বলা হয়, বিশেষজ্ঞরা যখন দেশে করোনায় আক্রান্তের ঝুঁকি সর্বোচ্চ পর্যায়ে যাবার পূর্বাভাস দিচ্ছেন, ঠিক তখনই গার্মেন্টসের পর এবার মার্কেট ও বিপনীবিতান চালু করা হচ্ছে। সরকার সবকিছুই খুলে দেওয়ার পথে হাঁটছে। অবিলম্বে এই ঝুঁকিপূর্ণ পদক্ষেপ থেকে সরে এসে সরকারকে লকডাউন বাস্তবায়ন ও আবারও স্বাভাবিক কর্মকাণ্ড চালু করার পরিবেশ সৃষ্টির পদক্ষেপ নিতে হবে। 

করোনা পরিস্থিতি মোকাবিলায় নয় দফা প্রস্তাব দিয়ে সংবাদ সম্মেলনে বলা হয়, করোনা যেসব গুরুত্বপূর্ণ শিক্ষা দিয়েছে তা থেকে মুখ ফিরিয়ে সবকিছু আগের মতই চালাতে চাইলে সেটি ভুল হবে, মস্তবড় ভুল। যার পরিণামে হয়ত ভুগতে হবে সবাইকেই। একটি বৈষম্যহীন পৃথিবী নির্মাণ ও সব জীবনকে গুরুত্বপূর্ণ করে তোলার মাধ্যমেই সবচেয়ে ভালোভাবে এই মহামারি মোকাবিলা করা সম্ভব হবে।