বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী বলেছেন, আওয়ামী লীগ সরকারের বিদায় ঘণ্টা বেজে গেছে। চলতি বছরেই সরকারকে বিদায় নিতে হবে।

শনিবার বিকেলে নগরীর দলীয় কার্যালয়ের সামনে প্রয়াত জিয়াউর রহমানের বীরউত্তম খেতাব বাতিলের প্রস্তাবের প্রতিবাদে বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ মন্তব্য করেন।

আমীর খসরু বলেন, আলজাজিরার প্রতিবেদনে সরকারের কম্পন শুরু হয়ে গেছে। এ চ্যানেলে আরও খবর আসছে। তাতে সরকারের দেশ ও দেশের বাইরের সব পাতিলের খবর বের হয়ে যাবে। আলজাজিরার পরবর্তী প্রতিবেদনে বহু লোকের নাম জড়িত আছে।

তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান বীরউত্তম খেতাব পেয়ে গৌরবান্বিত হননি বরং বীরউত্তম পদটি গৌরবান্বিত হয়েছে। বিএনপিতে অনেক খেতাবপ্রাপ্ত লোক আছেন। কিন্তু আওয়ামী লীগে খেতাবপ্রাপ্ত মুক্তিযোদ্ধা খুঁজে বের করতে হবে।

সাবেক মন্ত্রী আমীর খসরু বলেন, খুন, গুম ও হত্যার সঙ্গে জড়িত সরকার। প্রশাসনকে বলব, আপনারা কোনো দলের পক্ষে দায়িত্ব পালন করবেন না, জনগণের পক্ষে দায়িত্ব পালন করুন। আপনারা যতই লাঠিপেটা, গুম-খুন ও হত্যা করেন, দেশের মানুষ কিন্তু সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে। দুর্নীতি এখন চরম শিখরে পৌঁছেছে। আওয়ামী লীগের কিছু লোক রাষ্ট্রের সব সম্পদ কুক্ষিগত করে রেখেছে। জাতি আজ শঙ্কিত।

নগর বিএনপির আহ্বায়ক ডা. শাহাদাত হোসেনের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব আবুল হাশেম বক্করের সঞ্চালনায় সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীম, শ্রমবিষয়ক সম্পাদক এএম নাজির উদ্দিন, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আবু সুফিয়ান প্রমুখ।