আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, যারা বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রামের ধারাবাহিকতাকে অস্বীকার করে, দেশের স্বাধীনতার ব্যাপারে তাদের আস্থারও অভাব রয়েছে। 

সোমবার ঐতিহাসিক ৭ জুন ছয় দফা দিবস উপলক্ষে ধানমণ্ডি ৩২ নম্বরে বঙ্গবন্ধু ভবন প্রাঙ্গণে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, বিএনপির গণতন্ত্রে বিশ্বাস নেই বলেই তারা নির্বাচন বয়কট করেছে। 

ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবসের প্রেক্ষাপট তুলে ধরে ওবায়দুল কাদের বলেন, ৭ জুন হচ্ছে স্বাধীনতা সংগ্রামের মাইলফলক। ছয় দফার লক্ষ্য ছিল দুইটি। প্রথমটি হচ্ছে বাঙালির স্বাধীনতা আর দ্বিতীয়টি হচ্ছে বাঙালির মুক্তি। 

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে দেশের স্বাধীনতা অর্জিত হয়েছে। এখন তার সুযোগ্য কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ উন্নয়নের মহাসড়ক ধরে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণে নবতর পথযাত্রার মুক্তির লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে। 

এর আগে ওবায়দুল কাদের প্রথমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পক্ষে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন। পরে দলের কেন্দ্রীয় নেতাদের সঙ্গে নিয়ে আওয়ামী লীগের পক্ষে শ্রদ্ধা জানান তিনি। শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে নীরবে কিছুক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকেন নেতারা। 

এ সময় সেখানে আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী, অ্যাডভোকেট জাহাঙ্গীর কবির নানক, শাহজাহান খান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ, তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, এসএম কামাল হোসেন, অ্যাডভোকেট আফজাল হোসেন, মির্জা আজম, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. আবদুস সোবহান গোলাপ, ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি সম্পাদক প্রকৌশলী আবদুস সবুর, উপ-দপ্তর সম্পাদক সায়েম খান, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য করুন