জাতীয় পার্টির (জাপা) চেয়ারম্যান জিএম কাদের বলেছেন, উন্নয়নের সুফল জনগণ পাচ্ছে না। প্রবৃদ্ধির কথা বলা হলেও দুর্নীতিতে তার সুফল লুণ্ঠিত হচ্ছে। দেশে চাকরির ক্ষেত্র ও সুযোগ তৈরি হচ্ছে না। তরুণরা জীবিকার জন্য পাহাড়, মরুভূমি, সমুদ্র, জঙ্গল পাড়ি দিয়ে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে দেশত্যাগ করছে। জাতীয় পার্টির শাসনামলে উন্নয়নের সুফল জনগণের দোরগোড়ায় পৌঁছেছিল। এরশাদের করা সংস্কারের সুফল জনগণ আজও ভোগ করছে।

রোববার জাপার বনানী কার্যালয়ে নতুন মহাসচিব মুজিবুল হক চুন্নুকে দলের বিভিন্ন অঙ্গসংগঠনের পক্ষ থেকে শুভেচ্ছা জ্ঞাপন অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেছেন বিরোধীদলীয় উপনেতা জিএম কাদের। এ সময় নেতাকর্মীরা মুজিবুল হক চুন্নুকে ফুল দিয়ে কার্যালয়ে অভ্যর্থনা জানান।

নতুন মহাসচিব ও দলের নেতাদের উদ্দেশে জিএম কাদের বলেন, জনগণের কাছে ভাবমূর্তি উজ্জ্বল রাখতে হবে। নেতাকে লোভের ঊর্ধ্বে উঠে কাজ করতে হবে। জনগণের কাছে নন্দিত নেতা হতে হবে, নিন্দিত নয়। দলে কোন্দল তৈরি করলে অবশ্যই শাস্তি পেতে হবে।

মহাসচিব চুন্নু বলেছেন, ত্যাগী, মেধাবী, কর্মঠ ও নিবেদিতপ্রাণ নেতাকর্মীদের নিয়ে জাতীয় পার্টিকে ভবিষ্যৎ প্রজন্মের উপযোগী শক্তিশালী রাজনৈতিক দল হিসেবে তৈরি করা হবে। তিনি চেয়ারম্যানের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে বিশ্বস্ত থাকার অঙ্গীকার করেন। 

অনুষ্ঠানে আরও বক্তৃতা করেন প্রেসিডিয়াম সদস্য সাহিদুর রহমান টেপা, এটিইউ তাজ রহমান, রেজাউল ইসলাম ভুঁইয়া, লিয়াকত হোসেন খোকা এমপি প্রমুখ।