ঢাকা বুধবার, ২২ মে ২০২৪

জাতীয় পার্টির সঙ্গে জোট হয়নি, সমন্বয় হয়েছে: কাদের

বিবৃতিদাতা ৪০ বুদ্ধিজীবী বিএনপির দালাল

জাতীয় পার্টির সঙ্গে জোট হয়নি: কাদের

ফাইল ছবি

সমকাল প্রতিবেদক

প্রকাশ: ১৮ ডিসেম্বর ২০২৩ | ১৯:১২ | আপডেট: ১৮ ডিসেম্বর ২০২৩ | ১৯:২০

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, বিরোধী দল বিএনপি নির্বাচনে আসেনি। ফলে জোট করার প্রয়োজনীয়তা নেই। জাতীয় পার্টির (জাপা) সঙ্গে আওয়ামী লীগের জোট হয়নি, সমন্বয় হয়েছে। এটা নির্বাচনী কৌশল।

সোমবার আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

কাদের বলেন, আওয়ামী লীগের কাছে জাপা বড় সংখ্যায় আসনে সমর্থন চেয়েছে। আওয়ামী লীগ ২৬টি আসনে সমঝোতা করতে পেরেছে। সে জন্য নৌকা প্রত্যাহার করা হয়েছে। এই আসনগুলোতে জাপা লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে প্রতিযোগিতা করবে। 

তিনি বলেন, নির্বাচনে আসন সমঝোতা নতুন কিছু নয়। ২০১৪ ও ২০১৮ সালের নির্বাচনেও এটা হয়েছিল। তবে এবার আমরা খুব কমই সহযোগিতা করতে পেরেছি। 

সংসদ ভেঙে দিয়ে নির্বাচনের দাবি জানিয়ে দেশের ৪০ জন বুদ্ধিজীবীর দেওয়া বিবৃতির সমালোচনা করে ওবায়দুল কাদের বলেন, হরতাল-অবরোধ কী তারা সমর্থন করেন? যে বুদ্ধিজীবীরা আজ জ্বালাও-পোড়াও ও হরতাল-অবরোধ সমর্থন করছেন, তারা আসলে বিএনপির দালাল। ২৭টি দল নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে, তারপরও তারা বলছেন ‘একতরফা নির্বাচন’। আসলে বিএনপির জন্য তাদের মন কাঁদে। দেশের জনগণের প্রতি তাদের কোনো দায়বদ্ধতা নেই।

তিনি বলেন, এ নির্বাচনে নাকি প্রকৃত জনপ্রতিনিধি নির্বাচন করা অসম্ভব হয়ে যাবে। আসলে এই বুদ্ধিজীবীরা বিএনপির রাজনৈতিক এজেন্ডা বাস্তবায়নে ব্যস্ত। বিবৃতি যখন দেওয়া উচিত ছিল, তখন তারা দেননি। তাদের বলব, এই বিবৃতি দেওয়ার আগে তাদের উচিত ছিল বিএনপিকে নির্বাচনে অংশগ্রহণের আহ্বান জানানো এবং ভোটে অংশগ্রহণ না করায় তাদের তিরস্কার করা। বুদ্ধিজীবীরা কেন নাশকতা, জ্বালাও-পোড়াওয়ের বিরুদ্ধে বিবৃতি দিতে অপারগ, কেন এ ব্যাপারে নীরব?

সেতুমন্ত্রী বলেন, দেশের জনগণ উন্মুখ হয়ে ভোট দেওয়ার জন্য অপেক্ষা করছে। ২৭টি দল ও ১ হাজার ৮৮৬ জন নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। স্বতন্ত্র আছেন ৩৫৭ জন। নির্বাচনের সর্বাত্মক প্রস্তুতি চলছে। একটি প্রতিদ্বন্দ্বিতাপূর্ণ নির্বাচন হবে বলে আশা করছি।

বিএনপি নেতা মঈন খানের উদ্দেশে তিনি বলেন, ৭ জানুয়ারি সারাদেশের দিকে একটু নজর দেবেন, ভোটকেন্দ্রের দিকে একটু তাকাবেন। তাহলেই বুঝতে পারবেন সারাদেশের মানুষ ভোট দেওয়ার জন্য কতটা উন্মুখ হয়ে আছে।

তিনি জানান, আগামী বুধবার হজরত শাহজালাল ও শাহপরাণের মাজার জিয়ারতের মধ্য দিয়ে সিলেটে প্রথম নির্বাচনী জনসভা করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শেখ হাসিনা আগামী ২৭ ডিসেম্বর আওয়ামী লীগের নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করবেন।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক বিএম মোজাম্মেল হক, মির্জা আজম, সুজিত রায় নন্দী, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, ধর্মবিষয়ক সম্পাদক সিরাজুল মোস্তফা, শিক্ষা ও মানবসম্পদ সম্পাদক শামসুন্নাহার চাঁপা, উপদপ্তর সম্পাদক সায়েম খান প্রমুখ। 

আরও পড়ুন

×