বেতনা নদী খননের তথ্য জানতে চেয়ে সাতক্ষীরায় পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) কর্মকর্তা-কর্মচারীদের হামলার শিকার হয়েছেন এক সাংবাদিক। পিটিয়ে জখম করা হয়েছ তাকে। রোববার সাতক্ষীরা পাউবো কার্যালয়ে এ ঘটনা ঘটে।

হামলার শিকার ইয়ারব হোসেন দৈনিক মানবজমিনের সাতক্ষীরা প্রতিনিধি। এ হামলার প্রতিবাদে পাউবো কার্যালয়ের সামনে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করেছেন স্থানীয় সাংবাদিকরা।

জানা গেছে, রোববার সকালে সাতক্ষীরা পানি উন্নয়ন বোর্ড-১-এর নির্বাহী প্রকৌশলী আবুল খায়েরের কাছে বেতনা নদী খননের তথ্য জানতে গেলে তাঁর নির্দেশে সাংবাদিক ইয়ারব হোসেনকে শারীরিকভাবে নির্যাতন করা হয়। পাউবোর কর্মকর্তা-কর্মচারী ও বহিরাগত সন্ত্রাসীরা তাঁকে বেধড়ক পিটিয়ে আহত করে।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, সাতক্ষীরা উপকূল রক্ষা ও জলাবদ্ধতা নিরসনের লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ৪৩০ কোটি টাকার একটি প্রকল্প পাস করেন। এ প্রকল্পের চলমান কাজে ব্যাপক দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে। সাতক্ষীরা শহরের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া বেতনা নদী পুনর্খনন কাজে পুকুর চুরির অভিযোগ রয়েছে। এসব বিষয়ে জানতে চাওয়ায় সাংবাদিক ইয়ারব হোসেনের ওপর হামলা হয়। বক্তারা নির্বাহী প্রকৌশলী আবুল খায়েরের প্রত্যাহারসহ সন্ত্রাসীদের গ্রেপ্তারের দাবি জানান।

মানববন্ধনে বক্তব্য দেন সাংবাদিক কল্যাণ ব্যানার্জি, এম কামরুজ্জামান, মোস্তাফিজুর রহমান উজ্জ্বল, আসাদুজ্জামান আসাদ, মনিরুল ইসলাম মনি প্রমুখ।

এ ব্যাপারে নির্বাহী প্রকৌশলী আবুল খায়ের বলেন, সাংবাদিক ইয়ারব হোসেন যে তথ্য নিতে এসেছিলেন, সেটা আমার দপ্তরের নয়। এই কাজ তদারকির দায়িত্ব সাতক্ষীরা পানি উন্নয়ন বোর্ড-২ এর। কোনো কিছু বলার আগেই তিনি কার্যালয়ে এসে ফেসবুক লাইভ শুরু করেন। এ সময় কার্যালয়ের অন্য স্টাফদের সঙ্গে তাঁর ঝামেলা হয়েছে।