নির্বাচন কমিশনের ডাকা মতবিনিময় সভায় অংশ নেবে না বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল (বাসদ)। নির্বাচন কমিশনকে চিঠি নিয়ে মতবিনিময় সভায় অংশগ্রহণে অপাগরতার বিষয়ে জানিয়েছে বজলুর রশীদ ফিরোজের নেতৃত্বাধীন দলটি।

সোমবার বাসদের পক্ষ থেকে গণমাধ্যমে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ইভিএমের কারিগরি দিক ও ভোটদান বিষয়ে আগামী ২৮ জুন বিকেল সাড়ে ৩টায় মতবিনিময় সভায় অংশ নিতে আমন্ত্রণ জানিয়ে নির্বাচন কমিশন থেকে বাসদকে চিঠি দেওয়া হয়েছিল। এর আগে ২০১৭ ও ২০১১ সালে তৎকালীন কমিশনের আমন্ত্রণে সাড়া দিয়ে মতবিনিময় সভায় উপস্থিত হয়ে লিখিত ও মৌখিকভাবে বেশ কিছু প্রস্তাব দিয়েছিল বাসদ। কমিশন বাসদের প্রস্তাব ও মতামত শুনেছিল এবং বাস্তবায়নের আশ্বাসও দিয়েছিল। তবে পরে কোনকিছুই বাস্তবায়ন করতে দেখা যায়নি।

বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, কোন কারণে বাসদের প্রস্তাব বাস্তবায়ন করা সম্ভব হয়নি, তা জানানোর ন্যূনতম সৌজন্যটুকুও কমিশন দেখায়নি। বাসদ মনে করে, নির্বাচনকালীন সরকার, নির্বাচন কমিশন, নির্বাচনী পরিবেশ, প্রশাসন, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর প্রতি জনগণের আস্থা অর্জন ছাড়া নিরপেক্ষ সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব না। তা দেশের জনগণ গত ১১টি নির্বাচনে প্রত্যক্ষ করেছে। বর্তমান কমিশনও যে সুষ্ঠু নির্বাচন অনুষ্ঠানে কার্যকর ভূমিকা রাখতে পারবে না, তার কিছু লক্ষণ কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দেখা গেছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বাসদের পক্ষ থেকে বলা হয়, ২০১৭ ও ২০১১ সালে সুষ্ঠু নির্বাচনের জন্য বাসদের পক্ষ থেকে যেসব প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল, তা আজও প্রাসঙ্গিক। এর ফলে কমিশনের সঙ্গে মতবিনিময় করতে গিয়ে তাদের মূল্যবান সময় নষ্ট করার কোনো অর্থ হয় না বলে ২৮ জুনের মতবিনিময় সভায় বাসদ অংশগ্রহণ করছে না। বর্তমান কমিশনের বিবেচনার সুবিধার্থে বিগত দিনের প্রস্তাবগুলো কমিশনে পাঠানো হয়েছে।