পদ্মা সেতুর নাট খুলে ফেসবুকে ভিডিও দেওয়ার পর গ্রেপ্তার হওয়া বায়েজিদ তালহার গাড়িটি জব্দ করেছে পুলিশের অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। একইসঙ্গে তার বন্ধু কায়সার যেন দেশত্যাগ করতে না পারে সেজন্য অভিবাসন কর্তৃপক্ষকে সতর্ক করা হয়েছে।

সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার রেজাউল করিম (মাসুদ) মঙ্গলবার এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি বলেন, সোমবার রাতে বায়েজিদ তালহাদের শান্তিনগরের বাসা থেকে গাড়িটি জব্দ করা হয়। গাড়িটি বায়েজিদের নামে নিবন্ধন করা।

রোববার থেকে পদ্মা সেতু যান চলাচলের জন্য উন্মুক্ত করে দেওয়ার পর ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়া একটি ভিডিওতে দেখা যায়, এক যুবক পদ্মা সেতুর পিলারের নাট খুলে তুলে ধরেছেন। 

এর কয়েক ঘণ্টার মধ্যে বিকেলে রাজধানীর শান্তিনগর এলাকা থেকে বায়েজিদ তালহাকে (৩১) গ্রেপ্তার করে পুলিশ। 

তার বিরুদ্ধে পদ্মা সেতু দক্ষিণ থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইনে একটি মামলা করা হয়েছে। ওই মামলায় সোমবার সাত দিনের রিমান্ডে নিয়ে বায়েজিদকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে সিআইডি।

পটুয়াখালী সদর উপজেলার লাউকাঠি ইউনিয়নের তেলিখালী গ্রামের ছেলে বায়েজিদ ঢাকা কলেজ থেকে ইসলামের ইতিহাসে পড়াশোনা করেছেন। বর্তমানে একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কাজ করেন তিনি। 

সিআইডির বিশেষ পুলিশ সুপার রেজাউল করিম বলেন, ‘বায়েজিদ কেন পদ্মা সেতুর নাট খুলেছিলেন, এ ব্যাপারে মুখ খুলেননি।’

তিনি জানান, বায়েজিদের বন্ধু  কায়সার বছর দশেক আগে কাতারে যান। তিনি সেখানেই থাকেন। মাসখানেক আগে দেশে এসেছেন। তিনি যেন দেশ ছেড়ে পালাতে না পারেন, সে বিষয়ে অভিবাসন কর্তৃপক্ষকে অবহিত করা হয়েছে।