বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ দলটির শীর্ষ নেতাদের বিরুদ্ধে রাজধানীর পল্টন থানায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলার আবেদন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার রাতে এই আবেদন করেন ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন। তবে রাত ১টায় এই প্রতিবেদন পর্যন্ত মামলা নথিভুক্ত হয়নি।

পল্টন থানার ওসি সালাহ উদ্দিন মিয়া সমকালকে বলেন, ডিজিটাল আইনে মামলার জন্য একটি আবেদন পেয়েছি। এখনও মামলা হিসেবে নথিভুক্ত করা হয়নি। সংশ্নিষ্ট ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার কাছে এটি পাঠানো হবে। মামলার বিষয়ে পরে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।
বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, ছাত্রদল সভাপতি কাজী রওনাকুল ইসলাম শ্রাবণ, সাধারণ সম্পাদক সাইফ মাহমুদ জুয়েল, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রদলের আহ্বায়ক পাভেল সিকদার, যুগ্ম আহ্বায়ক গোলাম রাব্বানী রবিন, মহানগর দক্ষিণ বিএনপির আহবায়ক আবদুস সালাম, সদস্য সচিব রফিকুল আলম মজনু ছাড়াও অজ্ঞাত কয়েকজনের নামে মামলার আবেদন করা হয়েছে।
এতে বলা হয়, ১৬ ও ১৭ জুলাই জাতীয় প্রেসক্লাবসহ বিভিন্ন স্থানে অভিযুক্তরা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উদ্দেশ্য করে আপত্তিকর বক্তব্য ও রাষ্ট্রবিরোধী উসকানি দেন। ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু আহমেদ মন্নাফীকে নিয়েও একই ধরনের বক্তব্য দেওয়া হয় এবং তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারের মাধ্যমে মানহানি করা হয়েছে।