আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে ইডেন কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি তামান্না জেসমিন রিভা ও সাধারণ সম্পাদক রাজিয়া সুলতানার বিচার করা না হলে আত্মহত্যার হুমকি দিয়েছেন নির্যাতনের শিকার ইডেন কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি জান্নাতুল ফেরদৌসী।

রোববার দুপুরে কলেজের শহীদ বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব হলের সামনে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এই হুমকি দেন তিনি।

তিনি বলেন, ‘আমাকে খুব খারাপভাবে মারধর করা হয়েছে রিভা-রাজিয়ার কথায়। আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে রিভা-রাজিয়ার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা না নেওয়া হলে আমি আত্মহত্যা করবো।’

জান্নাতুল বলেন, ইডেন ছাত্রলীগ সভাপতি তামান্না জেসমিন রিভা ও সাধারণ সম্পাদক রাজিয়া সুলতানের কাছের মানুষ হতে না পারায় আমাদের নির্যাতন করা হচ্ছে। যারাই তাদের অন্যায়গুলো ধরিয়ে দেয়, তারাই শত্রু হয়ে যায়।

তিনি বলেন, সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের চাঁদাবাজি ও সিটবাণিজ্য নিয়ে কথা বলায় আমাকে নির্যাতন করা হয়েছে এবং আপত্তিকর অবস্থায় ছবি তোলা হয়েছে। 

তিনি আরও বলেন, ছাত্রলীগের উপরমহলে বিষয়গুলো জানানোর পরও কোনো কাজ হয়নি। এছাড়া ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক তো ফোনই রিসিভ করেন না।

এই ঘটনায় তিনি লালবাগ থানায় মামলা করতে গেলে তার মামলা গ্রহণ করা হয়নি বলেও অভিযোগ করেন তিনি।

জানা গেছে, শনিবার রাতে ইডেন কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি তামান্না জেসমিন রিভা ও সাধারণ সম্পাদক রাজিয়া সুলতানার চাঁদাবাজি ও সিট বাণিজ্য নিয়ে গণমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দেওয়ায় কলেজ ছাত্রলীগের সহসভাপতি জান্নাতুল ফেরদৌসকে হল থেকে মারধর করে বের করে দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। বর্তমানে তিনি ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি আছেন।

গত ২২ সেপ্টেম্বর রিভা এবং রাজিয়ার বিভিন্ন অনিয়ম, চাঁদাবাজি, সিট বাণিজ্য ও হল দখল নিয়ে গণমাধ্যমে সাক্ষাৎকার দেন জান্নাতুল ফেরদৌস। এর দুদিন পর শনিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) রাত ১১টার দিকে হল থেকে বের করে দেওয়ার হুমকি দেন শাখা ছাত্রলীগ সভাপতি-সাধারণ সম্পাদকের অনুসারীরা। এ সময় তাকে হেনস্তা করারও অভিযোগ ওঠে।

গত ২৬ আগস্ট সমকালে রিভার বিভিন্ন বিতর্কিত কর্মকাণ্ড নিয়ে ‘ইডেনের ‘ডন’ রিভা’ শীর্ষক প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়। এতে রিভার বিরুদ্ধে ‘দুই ছাত্রীকে বিবস্ত্র করে ভিডিও ভাইরাল করার হুমকি’, ‘ছাত্রলীগের মিছিল-মিটিংয়ে শিক্ষার্থীদের জোর করে নিয়ে যাওয়া’সহ সিট বাণিজ্য, ক্যানটিন থেকে চাঁদা দাবি’ প্রভৃতি বিষয় ওঠে আসে।