পাঠ্যপুস্তকে বিবর্তনবাদ অন্তর্ভুক্ত করা এবং সুইডেনের স্টকহোমে পবিত্র কোরান পোড়ানোর প্রতিবাদে মঙ্গলবার রাজধানী ঢাকায় বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে জামায়াতে ইসলামী।

মিরপুর-১০ নম্বরে ঢাকা মহানগর উত্তরের মিছিল থেকে ৯ জনকে পুলিশ আটক করেছে বলে জামায়াত অভিযোগ করেছে।

জামায়াতের ঢাকা মহানগর উত্তরের সেক্রেটারি ড. রেজাউল করিমের নেতৃত্বে কয়েক মিনিটের মিছিলটি শেওড়াপাড়ায় আসে। তিনি সেখানে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে বলেছেন, সুইডেনে পবিত্র কোরান পুড়িয়ে মুসলমানদের হৃদয়ে আঘাত করা হয়েছে। একইভাবে বাংলাদেশে পাঠ্যপুস্তকে ধর্মবিদ্বেষ ঢুকিয়ে তরুণ প্রজন্মকে নাস্তিকতার দিকে ঠেলে দেওয়া হচ্ছে।

জামায়াতের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে অভিযোগ করা হয়েছে, সমাবেশের শেষ পর্যায়ে পুলিশ অতর্কিত আক্রমণ করে। এ সময় পথচারীসহ ৯ জনকে ধরে নিয়ে যাওয়া হয়।

সমাবেশকারীরা বাংলাদেশে নিযুক্ত সুইডেনের রাষ্ট্রদূতকে তলব করে প্রতিবাদ জানাতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে।

একই ইস্যুতে পুরান ঢাকার রায়সাহেব বাজা মোড়ে মিছিল সমাবেশ করে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ জামায়াত। দক্ষিণের নায়েবে আমিন ড. হেলাল উদ্দিনের নেতৃত্বে মিছিলকারী জামায়াতের আমির ডা. শফিকুর রহমানের মুক্তি, সুষ্ঠু নির্বাচন, তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা পুনর্বহাল এবং শিক্ষা ব্যবস্থা সংস্কারের দাবিতে স্লোগান দেন।