ঢাকা সোমবার, ২০ মে ২০২৪

মির্জা ফখরুল উন্মাদ হয়ে গেছেন: ওবায়দুল কাদের

মির্জা ফখরুল উন্মাদ হয়ে গেছেন: ওবায়দুল কাদের

হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদনের পর ওবায়দুল কাদের কথা বলেন গণমাধ্যমকর্মীদের সঙ্গে। ছবি-ফোকাস বাংলা

সমকাল প্রতিবেদক

প্রকাশ: ০৫ ডিসেম্বর ২০২১ | ০৭:৫৪ | আপডেট: ২১ এপ্রিল ২০২২ | ০০:৫০

ক্ষমতা হারিয়ে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও বিএনপির অন্যান্য নেতারা এখন ‘সব হারিয়ে পথহারা, পথিকের মত দিশেহারা’ হয়ে গেছেন বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, ‘বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর উন্মাদ হয়ে গেছেন। কী অদ্ভূত তার উক্তি! তার বক্তব্য সারাদেশে হাস্যরসের জন্ম দিয়েছে।’

রোববার রাজধানীর গুলিস্তানের মহানগর নাট্যমঞ্চে ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের ৩৮ নম্বর ওয়ার্ডের অন্তর্গত ১৫টি ইউনিট সম্মেলনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ওবায়দুল কাদের এসব কথা বলেন। ‘

‘খালেদা জিয়া না থাকলে আওয়ামী লীগ থাকবে না’- বিএনপি মহাসচিবের এমন বক্তব্যের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিএনপির জনসমর্থন নেই, পাবলিক ডাকলে আসে না। প্রতিদিন প্রেস ব্রিফিং করে মির্জা ফখরুল আবোল তাবোল কথা বলে। কী বলব তাকে?  তিনি কী আওয়ামী লীগকে চেনেন?’

বিএনপির নেতাদের উদ্দেশে কাদের বলেন, ‘আওয়ামী লীগ কারও দয়ায় টিকে নেই। আওয়ামী লীগের ক্ষমতার উৎস বিএনপির মতো বন্দুকের নল নয়। আওয়ামী লীগের ক্ষমতার উৎস এদেশের জনগণ। আওয়ামী লীগের শেঁকড় বাংলাদেশের মাটির অনেক গভীরে। প্রকৃতপক্ষে ক্ষমতা না থাকলে মির্জা ফখরুলরা যেভাবে সব হারিয়ে পথহারা, পথিকের মত দিশেহারা। আওয়ামী লীগ সেরকম দল নয়।’

৩৮ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি খন্দকার মইনুর রহমান জুয়েলের সভাপতিত্বে সম্মেলন উদ্বোধন করেন মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সভাপতি আবু আহমেদ মন্নাফী। 

আরও বক্তব্য রাখেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি, আফম বাহাউদ্দীন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক মির্জা আজম, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নুর তাপস, মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির, সহ-সভাপতি নুরুল আমিন রুহুল এমপি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী মোর্শেদ হোসেন কামাল, দপ্তর সম্পাদক রিয়াজ উদ্দিন রিয়াজসহ আরও অনেকে।

‘গণতন্ত্রপ্রিয় সব শক্তিকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে’

একই দিন গণতন্ত্রের মানসপুত্র ও উপমহাদেশের বরেণ্য রাজনীতিবিদ হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর ৫৮তম মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে হাইকোর্ট সংলগ্ন তার সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন ওবায়দুল কাদের। 

পরে তিনি সাংবাদিকদের বলেন, ‘পঁচাত্তরের পর ক্ষমতার মঞ্চে বসে যে সাম্প্রদায়িক অপশক্তি হত্যা ও ষড়যন্ত্রের রাজনীতি করেছে, সেই অপশক্তির দোসররা এখনো বেঁচে আছে। তারাই বারবার গণতন্ত্রের অভিযাত্রায় বাধা সৃষ্টি করে চলেছে। এর জন্য গণতন্ত্রপ্রিয় সকল শক্তিকে ঐক্যবদ্ধ হতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘পঁচাত্তরের পর ষড়যন্ত্রের বেড়াজালে গণতন্ত্র বারবার বলি হয়েছে। নির্বাচনের কফিনে গণতন্ত্রকে বারবার লাশ বানানো হয়েছে। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা এই গণতন্ত্রকে শৃঙ্খল মুক্ত করার জন্য আন্দোলন-সংগ্রাম করে যাচ্ছেন।’

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘অনেক আন্দোলন-সংগ্রামের মাধ্যমে অবরুদ্ধ গণতন্ত্র শৃঙ্খল মুক্ত হলেও গণতন্ত্র এখনো পুরোপুরি পরিপূর্ণতা পেয়েছে- তা দাবি করা যায় না। গণতন্ত্রকে পরিপূর্ণতা দিতে হলে গণতন্ত্রের অভিযাত্রায় শেখ হাসিনার নেতৃত্বে গণতন্ত্রে ক্রমবিকাশমান ধারাকে পরিপূর্ণতা এবং প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে হবে।’

হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর জীবন ও কর্মের প্রতি গভীর শ্রদ্ধা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দী গণতন্ত্রের অভিযাত্রায় অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে থাকবেন।’

এর আগে ওবায়দুল কাদেরের নেতৃত্বে আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে হোসেন শহীদ সোহরাওয়ার্দীর সমাধিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়। এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল হোসেন, কৃষি ও সমবায় বিষয়ক সম্পাদক ফরিদুন্নাহার লাইলী, ত্রাণ ও সমাজকল্যণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, দপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদক প্রকৌশলী আবদুস সবুর, কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সদস্য অ্যাডভোকেট এবিএম রিয়াজুল কবির কাওছারসহ আরও অনেকে।


আরও পড়ুন

×