রাসেল-পোলার্ডের দুর্দান্ত ক্যাচ

১২ জানুয়ারি ২০১৯

ক্রীড়া প্রতিবেদক

স্কোরকার্ড বলবে, ক্রিস গেইলের মহাগুরুত্বপূর্ণ উইকেটটা নিয়েছেন শুভাগত হোম। কিন্তু স্কোরকার্ড আর কতটুকুই বা বলে? এই যেমন, স্কোরকার্ড দেখে বোঝার সাধ্য নেই, অবিশ্বাস্যভাবে ক্যাচ তৈরি করে দিয়ে উইকেটটা এনে দিয়েছেন ঢাকা ডায়নামাইটসের ক্যারিবিয়ান অলরাউন্ডার আন্দ্রে রাসেল। ব্যাটসম্যান গেইল এবং রংপুর রাইডার্স সমর্থকদের একরকম হতভম্ব করে দিয়ে অসামান্য এক ক্যাচ তৈরি করে দেন জাতীয় দলের সতীর্থ পোলার্ডকে।

আগে ব্যাট করে ১৮৩ রান তোলা ঢাকার সামনে সবচেয়ে বড় হুমকি হয়ে ছিলেন গেইল। রংপুরের ইনিংসের তৃতীয় ওভারটি করতে আসা শুভাগতকে প্রথম বলেই ছক্কা মেরে স্বাগত জানান ক্যারিবিয়ান এই সিক্স-মেশিন। পরের বলটা গেইলের প্যাডে আঘাত করলে ঢাকার আবেদনে সাড়া দিয়ে আউট দেন আম্পায়ার। রিভিউ নিয়ে অবশ্য বেঁচে যান গেইল। কিন্তু 'নতুন জীবন'টা হয় একদমই ক্ষণস্থায়ী।

পরের বলটা বড় শটে লং-অফ দিয়ে বল সীমানাছাড়া করতে চেয়েছিলেন গেইল। গেইলের আরও একটি ছক্কার আনন্দে রংপুরের সমর্থকরা উল্লাসও শুরু করে দিয়েছেন ততক্ষণে। কিন্তু অনেকটা দৌড়ে এসে হঠাৎ অনেকখানি লাফিয়ে বলটা হাতে জমান রাসেল। বল তালুবন্দি করার পর বুঝতে পারেন, লাফিয়ে চলে এসেছেন সীমানা দড়ির ওপাশে। লং-অন থেকে দৌড়ে পোলার্ড তখন রাসেলের কাছেই। শূন্যে ভাসমান অবস্থাতেই বলটা পোলার্ডের দিকে ছুড়ে দেন রাসেল। নাগালে পেয়ে পোলার্ড সহজেই বল মুঠোয় নেন। উল্লাসরত রংপুর সমর্থকরা হঠাৎই কেমন যেন স্তব্ধ হয়ে যায়। জাতীয় দলের দুই সতীর্থের যুগলবন্দিতে অসামান্য এক ক্যাচ দেখে গেইলের মুখে তখন অবিশ্বাসের হাসি।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২০

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ (প্রিন্ট), +৮৮০১৮১৫৫৫২৯৯৭ (অনলাইন) | ইমেইল: samakalad@gmail.com (প্রিন্ট), ad.samakalonline@outlook.com (অনলাইন)