মাথায় আঘাতের পর পুকুরে ফেলে আওয়ামী লীগ নেতাকে হত্যা

০৭ জুন ২০১৯ | আপডেট: ০৭ জুন ২০১৯

বিশ্বনাথ (সিলেট) প্রতিনিধি

সিলেটের বিশ্বনাথে নিজ ফিশারির পুকুরে ফেলে আহমদ আলী (৫৫) নামে এক আওয়ামী লীগ নেতাকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। তিনি উপজেলার দেওকলস ইউনিয়নের দক্ষিণ সৎপুর গ্রামের বাসিন্দা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য।

শুক্রবার বিকেলে ময়নাতদন্ত শেষে নিহতের লাশ তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করেছে বিশ্বনাথ থানা পুলিশ। এর আগে ভোররাতে গ্রামের পার্শ্ববর্তী বড়বনে তার নিজ ফিশারির পুকুর থেকে লাশ উদ্ধার করে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ মর্গে পাঠায় পুলিশ।

নিহতের একমাত্র ছেলে ইব্রাহিম আলী ও ১০ বছর বয়সী মেয়ে মরিয়ম বেগমের দাবি, দুর্বৃত্তরা রাতের আঁধারে তাদের বাবাকে হত্যা করে পালিয়ে গেছে। ঘটনার পর থেকে ওই ফিশারির দায়িত্বে থাকা সৎপুর খাশজান গ্রামের মৃত ময়না মিয়ার ছেলে জমির হোসেনও (৩৫) পলাতক।

ময়নাতদন্তের রিপোর্টে মাথায় আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে জানিয়ে বিশ্বনাথ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শামসুদ্দোহা পিপিএম ও তদন্ত ওসি দুলাল আকন্দ সমকালকে বলেন, তাদের ধারণা প্রথমে মাথায় আঘাত করা হয়েছে এবং অজ্ঞান হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ফিশারির পুকুরে ফেলে মৃত্যু নিশ্চিত করে দুর্বৃত্তরা পালিয়ে গেছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, আহমদ আলী দীর্ঘদিন সৌদি আরবে কাটানোর পর ২ বছর আগে দেশে ফিরে গ্রামের বাড়িতে পাশাপাশি ৪টি ফিশারিজ খামার গড়ে তোলেন। রাজনৈতিক পরিচয় ছাড়াও এলাকায় সালিশ ব্যক্তিত্ব হিসেবেও তার খ্যাতি রয়েছে। ঈদের পরদিন বৃহস্পতিবার বাড়ি থেকে বেরিয়ে রাত ৯টা পর্যন্ত আর না ফেরায় পরিবারের সদস্যরা তাকে খুঁজতে থাকেন। তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করেও ব্যর্থ হন। এক পর্যায়ে ফিশারির পুকুরে তার লাশ ভাসতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেয়। এ ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২০

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ (প্রিন্ট), +৮৮০১৮১৫৫৫২৯৯৭ (অনলাইন) | ইমেইল: [email protected] (প্রিন্ট), [email protected] (অনলাইন)