জোরে হাসতে গিয়ে বিপদে!

১২ সেপ্টেম্বর ২০১৯

অনলাইন ডেস্ক

শরীর ও মন সুস্থ রাখার জন্য হাসির তুলনা নেই। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞদের মতে, হাসলে শরীরের অভ্যন্তরে মাংসপেশির কার্যকারিতা উন্নত হয়, মানসিক চাপ কমে যায়।

অনেকেই আছেন একবার হাসতে শুরু করলে কয়েক মিনিট বা সেকেণ্ডের জন্য থামতে পারেন না। আবার কেউ কেউ আছেন অনেকক্ষণ ধরে শব্দ করে হাসেন। তবে কখনো কখনো এ ধরনের হাসি বিপদ ডেকে আনে।

সম্প্রতি এমনই এক ঘটনা ঘটেছে চীনের এক নারীর সঙ্গে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, দ্রুত গতির এক ট্রেনে ওই নারী যাত্রা করছিলেন। যে কোনো কারণেই হোক তিনি কয়েক মিনিট ধরে শব্দ করে হাসছিলেন। তবে হাসি থামাতে গিয়ে তিনি পড়েন বিপদে। চোয়াল আটকে যাওয়ায় হা করা মুখটা কিছুতেই বন্ধ করতে পারছিলেন না ওই নারী। ট্রেনের কর্মীদের জরুরি কলে চিকিৎসক লুও ওয়েনশেং তখন সেখানে আসেন। 

লুও বলেন, ‘ওই নারী মুখ বন্ধ করতে পারছেন না, কথাও বলতে পারছেন না। প্রথমে দেখে মনে হয়েছিল তিনি হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছেন। কিন্তু রক্তচাপ পরীক্ষা করে দেখি তেমন কিছু হয়নি।’

লুও জানান, ওই নারী ইশারায় তার চোয়াল ঠিক করে দেওয়ার অনুরোধ করেন তাকে। কিন্তু তিনি ওই ব্যাপারে বিশেষজ্ঞ না হওয়ায় সেটা করতে আপত্তি জানান। কিন্তু ওই নারীর বারবার অনুরোধে তিনি চোয়াল ঠিক করার চেষ্টা করেন এবং সফল হন।

জানা গেছে, এর আগেও গর্ভাবস্থায় বমি করতে গিয়ে ওই নারীর চোয়াল সরে গিয়েছিল। 

চিকিৎসক লি জানান, যাদের একবার চোয়াল সরে যাওয়ার ঘটনা ঘটে তারা বড় হা করে হাসলে বা খুব বেশি মুখ খুললে তাদের সঙ্গে এরকম ঘটনা আবারও ঘটতে পারে।

সূত্র : টাইমসনাউনিউজ

© সমকাল ২০০৫ - ২০২০

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ (প্রিন্ট), +৮৮০১৮১৫৫৫২৯৯৭ (অনলাইন) | ইমেইল: samakalad@gmail.com (প্রিন্ট), ad.samakalonline@outlook.com (অনলাইন)