২ বছরের শিশুকে কুপিয়ে জখম, দাদা আটক

প্রকাশ: ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০ । ১৮:৩৬

বামনা (বরগুনা) প্রতিনিধি

বরগুনার বামনা উপজেলার ডৌয়াতলা গ্রামে আবিদা আক্তার নামে দুই বছরের এক কন্যাশিশুকে ঘুমন্ত অবস্থায় কুপিয়ে গুরুতর জখম করেছে তার দাদা আ. মান্নান পহলান (৭৫)। 

শিশু আবিদা মন্নান পহলানের ছেলে মো. মজিবর পহলানের একমাত্র সন্তান। শিশুটি বর্তমানে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুর দেড়টার দিকে এই ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ দাদা মন্নান পহলানকে আটক ও ঘটনাস্থল থেকে একটি ধারালো দা উদ্ধার করেছে। 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, মজিবর পহলানের বাবা মন্নান পহলান মানসিক রোগী। দুপুরে মন্নান পহলান ডৌয়াতলা বাজারে নিজের ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ করে দুপুরের খাবার খেতে বাসায় যায়। এসময় শিশু আবিদা ঘরে ঘুমিয়ে ছিলো। শিশুটির মা তখন রান্না ঘরে ঘর কাজে ব্যস্ত ছিল। এসময় মন্নান একটি ধারালো দা দিয়ে শিশুটিকে তিনটি কোপ দেয়। শিশুটির চিৎকারে আশপাশের সবাই এসে তাকে উদ্ধার করে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। 

শিশু আবিদার বাবা মজিবর পহলান বলেন, আমার বাবা একজন মানসিক রোগী। গত রোববার তিনি স্বেচ্ছায় নিরুদ্দেশ হওয়ার জন্য রওনা দিয়ে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনার শিকার হন। পরের দিন সোমবার তাকে বরিশাল থেকে চিকিৎসা দিয়ে বাড়িতে ফিরিয়ে আনা হয়। আজ তিনি এঘটনাটি ঘটান। বাবার ভ্রান্ত ধারণা তার সহায় সম্পত্তি হয়তো কেউ জোড় করে ভোগ দখল করছে বা করবে। এই ধারণা থেকেই তিনি এ ঘটনাটি ঘটিয়েছেন।

অভিযুক্ত মন্নান পহলান বলেন, আমার সম্পত্তির একজন অংশিদার আমার নাতি আবিদা। তাই আমি তাকে কুপিয়েছি যাতে কোন অংশিদার না থাকে।

বামনা থানার ওসি অএসএম মাসুদুজ্জামান বলেন, আমি ঘটনাটি শুনে তাৎক্ষণিক পুলিশ পাঠিয়েছি। শিশুটির দাদা মন্নান পহলানকে আটক করে থানায় আনা হয়েছে। তবে এ ব্যপারে পরিবারের পক্ষে এখন পর্যন্ত কোন মামলা দায়ের করা হয়নি। 

© সমকাল ২০০৫ - ২০২২

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মোজাম্মেল হোসেন । প্রকাশক : আবুল কালাম আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com