সুচিত্রা সেন হওয়ার স্বপ্ন দেখতাম: সুজাতা

প্রকাশ: ১১ ফেব্রুয়ারি ২১ । ১৩:১৭ | আপডেট: ১১ ফেব্রুয়ারি ২১ । ১৩:৪০

বিনোদন প্রতিবেদক

সুজাতা আজিম। বরেণ্য অভিনেত্রী ও লেখক। সংস্কৃতি অঙ্গনে কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ এ বছর একুশে পদকে ভূষিত হয়েছেন তিনি। রাষ্ট্রীয় এই সম্মাননা পাওয়া এবং বর্তমান ব্যস্ততা ও অন্যান্য প্রসঙ্গ নিয়ে কথা হয় তার সঙ্গে-

সংস্কৃতিতে অবদানের জন্য একুশে পদক পেলেন। রাষ্ট্রীয় এই স্বীকৃতি নিয়ে আপনার অনুভূতি জানতে চাই...

দেশের সর্বোচ্চ এই স্বীকৃতি পাওয়ার যে ভালো লাগা, তা ভাষায় প্রকাশ করতে পারব না। সৃষ্টিকর্তার কাছে কৃতজ্ঞ, ৫৬ বছরের অভিনয় জীবনে এমন প্রাপ্তির জন্য। একই সঙ্গে প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানাতে চাই, আমাকে এই পুরস্কারের জন্য যোগ্য মনে করায়। ভাষা আন্দোলন ও মুক্তিযুদ্ধের শহীদদেরও স্মরণ করছি, যাদের আত্মত্যাগের জন্য এই সম্মাননা।

কখনও কি মনে হয়েছে এই স্বীকৃতি আরও আগে পাওয়া উচিত ছিল?

এমন কথা কখনোই মনে হয়নি। কারণ, আমি বিশ্বাস করি, সৃষ্টিকর্তা যখন মানুষকে সম্মানিত করবেন, তখন তিনি সেই সম্মান পাবেন। তা ছাড়া অভিনয় জীবনে কখনও স্বীকৃতির কথা ভেবে কাজ করিনি, যা করেছি তা ভালো লাগা, ভালোবাসা থেকেই করেছি।

যে কাজের প্রতি এত ভালোবাসা, সেই অভিনয় থেকে দূরে সরে আছেন কেন?

অভিনয় থেকে দূরে সরে গেছি যারা মনে করছেন, তাদের ধারণা একেবারেই ভুল। একদিকে ছবি নির্মাণ কমে গেছে, অন্যদিকে যেসব ছবি হচ্ছে তার চরিত্র নিয়েও আমাদের মতো শিল্পীদের কথা ভাবা হচ্ছে না। তা ছাড়া গল্প ভালো না হলে, চরিত্রে গভীরতা না থাকলে কাজ করেই বা লাভ কী? তবে ভালো কাজের সুযোগ পেলে এখনও অভিনয়ের জন্য প্রস্তুত।

যে অঙ্গনে দশকের পর দশক কেটেছে, সেই চলচ্চিত্র অঙ্গনের দুরবস্থা মনে কষ্ট দেয় কি?

দেড় হাজার থেকে কমে সিনেমা হল আড়াইশতে এসে ঠেকেছে। এরপর আছে হলে দর্শক সংকট। অন্যদিকে, সিনেমায় যারা লগ্নি করবেন, তাদের লগ্নি উঠিয়ে আনাও কঠিন। আবার যারা নিজেদের অভিনয় প্রতিভা তুলে ধরতে চান, তাদের সুযোগও কমে এসেছে। এসব দেখে সত্যি কষ্ট লাগে। এ প্রজন্মের দর্শকদের কী দিতে পেরেছি? এ প্রশ্ন প্রায়ই মনের মাঝে উঠে আসে।

গত পাঁচ দশকে অসংখ্য ছবিতে অভিনয় করেছেন। এর মধ্যে কোন ছবিগুলো সেরা হিসেবে উল্লেখ করতে চান?

সেরা ছবি নির্বাচনের বিষয়টা দর্শকের হাতে ছেড়ে দিতে চাই। তবে 'রূপবান' ছবির সাফল্যকে স্মরণীয় বলে মনে করি। আমার বিশ্বাস, মৃত্যুর পরও এই ছবির মধ্য দিয়ে দর্শকের মাঝে বেঁচে থাকব।

অভিনয় জীবনের অপ্রাপ্তি আছে বলে মনে করেন?

ব্যক্তিজীবনে কোনো অপ্রাপ্তি আছে বলে মনে করি না। তবে শিল্পীজীবনে আত্মতৃপ্তি বলে কিছু নেই। হাজার কাজের পরও মনে হয়, কিছু অপূর্ণতা, অপ্রাপ্তি থেকে গেছে। অভিনয়ের ক্ষুধা থেকেই এই অনুভূতির জন্ম হয়। অভিনয় জীবনের শুরুতে সুচিত্রা সেন হওয়ার স্বপ্ন দেখতাম। কিন্তু তা হওয়া সম্ভব নয় বলেই আমি সুচিত্রা সেন নয়, সুজাতা হয়েছি।

অভিনয়ের পাশাপাশি লেখালেখি করেন। নতুন কিছু লিখছেন?

'মেঘলা আকাশ' নামে একটি উপন্যাস লিখেছি। এর পাশাপাশি শেষ করেছি আত্মজীবনী 'আমার আত্মকথা' ও স্মৃতিকথা 'রূপবানের কথা' নামে আরও দুটি বইয়ের কাজ। এই তিনটি বই আসছে বইমেলায় প্রকাশ পাবে।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২১

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com