কবিতা-গানে সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের সবুজ বাঁচানোর লড়াই

প্রকাশ: ১০ মে ২১ । ২২:২০

সমকাল প্রতিবেদক

চপল মাহমুদ। পেশায় সাংবাদিক। প্রাণ-প্রকৃতি নিয়ে কবিতাও লেখেন। সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে গাছ কাটার প্রতিবাদ জানাতে সেসব কবিতা নিয়ে এসেছেন তিনি। সোমবার বিকেলে টিএসসির রাজু ভাস্কর্যের সামনে নিজের লেখা পরিবেশবিষয়ক ২০টিরও বেশি কবিতা পাঠ করে গাছ কাটার প্রতিবাদ জানান তিনি। চপল মাহমুদ সমকালকে বলেন, সবুজ ধ্বংসের প্রতিবাদে কবিতাকেই ঢাল হিসেবে ব্যবহার করছি।

শুধু চপল মাহমুদ নন, বিভিন্ন সংগঠনের পাশপাশি নানা শ্রেণি-পেশার মানুষ সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে গাছ কাটার প্রতিবাদ জানাচ্ছেন। সকাল থেকে রাত পর্যন্ত ভিন্নধর্মী নানা আয়োজনে কেবল প্রতিধ্বনিত হয়েছে কোনোভাবেই কাটতে দেওয়া হবে না সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের আর একটি গাছ।

সোমবার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে নাটক, কবিতা, গান ও মানববন্ধন পালন করছে বিভিন্ন সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন। পথ নাটক, গান আর ক্যানভাস জুড়ে ফুটিয়ে তোলা হয়েছে গাছহীন ভবিষ্যতের ভয়াবহতা। রোপন করা হয়েছে গাছের চারাও।

সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের টিএসসির সামনের গেটে গত পাঁচ দিন ধরে 'গাছের জন্য মৌন পীড়ন' শিরোনামে তরুণ শিল্পীদের একটি দল কর্মসূচি পালন করছে। গতকালও তারা নাটক ও গানে গানে গাছ কাটার প্রতিবাদ জানায়। এই কর্মসূচির আয়োজকদের একজন সুজিত সজীব সমকালকে বলেন, যখন প্রাণ প্রকৃতি নিয়ে পুরো পৃথিবীকে নতুন করে ভাবতে শেখাচ্ছে এক অদৃশ্য ভাইরাস, তখন সবুজের ওপর এমন নিষ্ঠুর আচরণে কোনোভাবে মেনে নেওয়ার নয়। তাই তারা গাছগুলোকে পাহারা দিচ্ছেন, আর যেন একটি গাছও কাটা না পড়ে।

সবুজের জঙ্গল কেটে কংক্রিটের জঙ্গল গড়ার প্রতিবাদে গতকালও সোচ্চার ছিল নোঙর বাংলাদশ, স্বাধীনতা উদ্যান সাংস্কৃতিক জোট, গ্রিন পল্গ্যানেটসহ বিভিন্ন সংগঠন। পুরো সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের ঘুরে দেখা গেছে, বিভিন্ন স্থানে না রকম স্লোগান লিখে পোস্টার লাগানো হয়েছে। আন্দোলনকারীরা লাল ক্রস চিহ্ন গাছগুলোর নামকরণ করেছেন খেতাবপ্রাপ্ত বীর মুক্তিযোদ্ধাদের নামে নামকরণ করে। আন্দোলনকালীদের একজন সঞ্জিব দাস সমকালকে বলেন, সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে সবুজ বাঁচাতে তাদের লড়াই চলবে। সৌন্দর্য বাড়ানোর নামে প্রকৃতি ধ্বংসের এই পরিকল্পনা বাতিলের জন্য সরকারের কাছ দাবি জানান তিনি।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২১

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com