খালেদা জিয়াকে বিদেশ নিতে চাওয়া ভিন্ন কারণে: তথ্যমন্ত্রী

প্রকাশ: ১১ মে ২১ । ২০:২৫

সমকাল প্রতিবেদক

ড. হাছান মাহমুদ- ফাইল ছবি

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এবং তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ বলেছেন, খালেদা জিয়াকে বিদেশ নিতে চাওয়ার উদ্দেশ্য ভিন্ন। দেশবিরোধী ষড়যন্ত্র-তৎপরতা বাড়াতেই তাকে বিদেশ নিতে চেয়েছিল বিএনপি। তাদের উদ্দেশ্য মূলত রাজনীতি। বিদেশ থেকে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমসহ বিভিন্ন উপায়ে ষড়যন্ত্র ও দেশবিরোধী যে কর্মকাণ্ড করা হয়, সেগুলো আরও তৎপর করাই ছিল উদ্দেশ্য।

মঙ্গলবার দুপুরে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে প্রধানমন্ত্রীর পক্ষ থেকে আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগের ঈদ উপহার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এসব কথা বলেন। মৎস্যজীবী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা হাজি সায়ীদুর রহমানের সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক লায়ন শেখ আজগর লস্করের সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথির বক্তৃতা করেন আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবদুস সোবহান গোলাপ এমপি।

তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়ার সঠিক জন্মদিন কোনটি, সেটি জনগণ জানতে চায়। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে জানা গেছে, করোনা টেস্টের রিপোর্টে তার জন্মতারিখ ৮ মে, ১৯৪৬ সাল। এই গোমর ফাঁস হয়ে গেছে। তার পাসপোর্টে একটা জন্মতারিখ, স্টু্কল সার্টিফিকেটে আরেকটা। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর অন্য একটা, আবার করোনা রিপোর্টে আরেকটা জন্মতারিখ। তাহলে ঠিক কোনটা, সেটা জনগণ জানতে চায়।

হাছান মাহমুদ বলেন, আওয়ামী লীগ প্রতিহিংসার রাজনীতি করে না। বিএনপি এবং খালেদা জিয়াই তা করেন। সে জন্যই তারা ১৫ আগস্ট মিথ্যা জন্মদিন পালন করেন। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা হয়েছিল, ১৯৯৬ সালে পাতানো নির্বাচন করে বঙ্গবন্ধুর খুনিকে বিরোধীদলীয় নেতা বানানো হয়েছিল, বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের বিচার তারা বন্ধ করেছিল।

তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুকন্যা ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সব কিছু ভুলে গিয়ে আদালতে জামিন না পাওয়ার পরও প্রধানমন্ত্রীর প্রশাসনিক ক্ষমতাবলে খালেদা জিয়াকে প্রায় দেড় বছর ধরে কারাগারের বাইরে রেখেছেন। বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রতিহিংসার রাজনীতি করেন না। বরং তিনি যে সহমর্মিতা ও সহানুভূতি দেখিয়েছেন, তা থেকে বিএনপি এবং খালেদা জিয়ার অনেক কিছু শেখার আছে।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২১

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com