পরমাণু শক্তি সংস্থায় হামলা নস্যাতের দাবি ইরানের

প্রেস টিভিসহ ৩৩টি ওয়েবসাইট বন্ধ করেছে যুক্তরাষ্ট্র

২৪ জুন ২১ । ০০:০০

সমকাল ডেস্ক

ইরানের পরমাণু শক্তি সংস্থার একটি ভবনে চালানো নাশকতামূলক হামলা নস্যাতের দাবি করেছে তেহরান। বুধবার সকালে এ হামলা চালানো হয়। তবে এতে কোনো ক্ষয়ক্ষতি হয়নি বলে জানানো হয়েছে। এ হামলা কীভাবে প্রতিহত করা হয়েছে, সে সম্পর্কে কিছুই জানায়নি কর্তৃপক্ষ। রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে বলা হয়েছে, নাশকতাকারীদের পরিকল্পনা ব্যর্থ হয়েছে। এমন সময় এ দাবি করা হলো, যখন অস্ট্রিয়ার ভিয়েনায় পরমাণু চুক্তি পুনরুজ্জীবিত করতে ইরানের সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের আলোচনা চলছে।

২০১৫ সালে যুক্তরাষ্ট্রসহ ছয় বিশ্বশক্তির সঙ্গে পরমাণু চুক্তি করে ইরান। চুক্তি মেনে দেশটি পারমাণবিক কার্যক্রম থেকে সরে আসার ঘোষণা দেয়। বিনিময়ে তাদের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা ধাপে ধাপে প্রত্যাহারের কথা জানায় পশ্চিমা দেশগুলো। তবে পরিস্থিতি বদলে যায় ২০১৮ সালে। যুক্তরাষ্ট্রের তখনকার প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ওই চুক্তিকে 'দেশবিরোধী' উল্লেখ করে তা থেকে নিজ দেশের নাম প্রত্যাহার করে নেন। পরমাণু চুক্তির শুরু থেকেই তার বিরোধিতা করে আসছে ইসরায়েল। এমনকি সম্প্রতি নতুন করে আলোচনা শুরু হলেও তার বিরুদ্ধে অবস্থান নেয় দেশটি। এরই মধ্যে গত এপ্রিলে ইরানের নাতানশ ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ প্রকল্পে হামলার ঘটনা ঘটে। ওই হামলার জন্য তেল আবিবকে দায়ী করে তেহরান। বুধবারের হামলার খবর এমন সময় প্রকাশ পেল, যার দু'দিন আগে দেশটির একমাত্র পারমাণবিক বিদ্যুৎকেন্দ্র বন্ধ হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, বিদ্যুৎ বিভ্রাটের কারণে বুশেহর বিদ্যুৎকেন্দ্রটি বন্ধ হয়। তবে দেশটির একজন জ্বালানি কর্মকর্তা বলেছেন, কারিগরি ত্রুটির কারণে বন্ধ হয়েছে ওই কেন্দ্রটি।

জো বাইডেন যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর ২০১৫ সালের পরমাণু চুক্তি চালুর চেষ্টা করছেন। সে লক্ষ্যে ভিয়েনায় দু'পক্ষের আলোচনা চলছে। এমন সময় পরমাণু কেন্দ্র বন্ধ হওয়ার ঘটনা ওই চুক্তির জন্য 'ভালো সুযোগ' হতে পারে বলে মত দিয়েছেন বিশ্নেষকরা।

এদিকে মঙ্গলবার যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ জানিয়েছে, 'বিভ্রান্তি ছড়ানো' ও 'সহিংস সংগঠনের' সঙ্গে জড়িত থাকার অভিযোগে ইরানের ৩৩টিসহ ৩৬টি ওয়েবসাইট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এক বিবৃতিতে তারা জানায়, 'নিষেধাজ্ঞা অমান্য করায় আদালতের রায়ে যুক্তরাষ্ট্র মঙ্গলবার ইরানের ইসলামিক রেডিও অ্যান্ড টেলিভিশন ইউনিয়নের ব্যবহার করা ৩৩টি ওয়েবসাইট এবং কাতাইব হিজবুল্লাহ পরিচালিত তিনটি ওয়েবসাইট বন্ধ করেছে।' এগুলোর মধ্যে প্রেস টিভি ও আল আলম টিভিও রয়েছে। খবর এএফপি ও রয়টার্সের।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২১

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com