সিসিকের জরুরি সভা

সিলেটে উপজেলা পর্যায়ে করোনার সর্বোচ্চ চিকিৎসা নিশ্চিতের তাগিদ

প্রকাশ: ০৩ আগস্ট ২১ । ১৮:৫৮

সিলেট ব্যুরো

মঙ্গলবার নগর ভবনে সিলেট সিটি করপোরেশনের উদ্যোগে করোনা পরিস্থিতি নিয়ে জরুরি সভা অনুষ্ঠিত হয়- সমকাল

সিলেট বিভাগে করোনাভাইরাস পরিস্থিতির অবনতি হওয়ায় সরকারি-বেসরকারি হাসপাতালে শয্যা সংকট দেখা দিয়েছে। বেসরকারি হাসপাতালে অতিরিক্ত ব্যয় ও অক্সিজেনের সংকটের জন্য মূল চাপ পড়ছে নগরীর সরকারি দুটি হাসপাতালে। ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও শহীদ ডা. শামসুদ্দিন আহমদ হাসপাতালে আইসিইউ বেডের তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে। অনেকক্ষেত্রে যে পরিস্থিতিতে করোনা আক্রান্তদের আনা হয়; তখন তাদের জীবন রক্ষা কষ্টসাধ্য হয়ে পড়ে। 

উদ্ভূত পরিস্থিতিতে উপজেলা পর্যায়ে সরকারি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে সর্বোচ্চ চিকিৎসার ব্যবস্থা নিশ্চিত করা গেলে মৃত্যুহার কমানো সম্ভব হবে বলে মনে করছেন সচেতন মহল। মঙ্গলবার দুপুরে নগর ভবনে সিলেট সিটি করপোরেশনের (সিসিক) মেয়র আরিফুল হক চৌধুরীর উদ্যোগে জরুরি সভায় বক্তারা এমন পরামর্শ দেন। সিসিকের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা বিধায়ক রায় চৌধুরীর সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন ভার্চুয়ালি যুক্ত হন। 

স্থানীয় রাজনীতিবিদ, স্বাস্থ্য বিভাগের কর্মকর্তা, সুশীল সমাজের প্রতিনিধি ও সাংবাদিক নেতাদের নিয়ে অনুষ্ঠিত জরুরি বৈঠক শেষে মেয়র আরিফ ব্রিফিং করেন। তিনি জানান, ওসমানী হাসপাতালে প্রস্তাবিত নতুন অক্সিজেন প্লান্ট দ্রুত স্থাপনের ওপরও সভায় জোর দেওয়া হয়েছে। করোনার সংক্রমণ প্রতিরোধে নগরীর ওয়ার্ড পর্যায়ে মাস্ক পরা ও টিকাগ্রহণে সবাইকে উদ্বুদ্ধকরণে প্রচার-প্রচারণা অব্যাহত রাখার সিদ্ধান্ত হয়। এছাড়া অক্সিজেন সরবরাহ বাড়ানোর আহ্বান জানানো হয়। 

নগর ভবনের সম্মেলন কক্ষে 'করোনার সংক্রমণ রোধ ও সিলেটের চিকিৎসাসেবার উন্নয়ন' শীর্ষক জরুরি সভায় গৃহিত সুপারিশ প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী, পরিকল্পনামন্ত্রী এবং প্রবাসী কল্যাণ ও কর্মসংস্থানমন্ত্রী বরাবরে প্রতিবেদন আকারে পাঠানোর সিদ্ধান্ত হয়েছে। মেয়র অরিফ বলেন, মহামারির সময়ে সিসিকের কাউন্সিলরদের নিজ নিজ ওয়ার্ডে সচেতনামূলক কার্যক্রম পরিচালনার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। পাশাপাশি গণটিকা গ্রহণে ওয়ার্ডের মানুষকে উদ্বুদ্ধ করতে বলা হয়েছে। 

সভায় করোনা সংক্রমণের ঊর্ধ্বগতি ও সিলেটের চিকিৎসাসেবার বর্তমান অবস্থা নিয়ে সংশ্লিষ্টরা মতামত দেন। সিলেটের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ জাকারিয়া, মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার পরিতোষ ঘোষ, বিভাগীয় পরিচালক (স্বাস্থ্য) ডা. হিমাংশু লাল রায়, সিলেটের সিভিল সার্জন ডা. প্রেমানন্দ মন্ডল, ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ব্রায়ান বঙ্কিম প্রমুখ আলোচনায় অংশ নেন। 

সভায় বক্তৃতা করেন মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহমদ, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক জাকির হোসেন, জেলার সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট নাসির উদ্দিন খান, জালালাবাদ রাগীব রাবেয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক অধ্যাপক ডা. মো. তারেক আজাদ, পার্কভিউ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সহযোগী অধ্যাপক ডা. জ্যোতি কুমার চৌধুরী, সিলেট উইমেন্স মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মো. এমদাদ হোসেন চৌধুরী প্রমুখ।

এছাড়া জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি অ্যাডভোকেট এটিএম ফয়েজ, সিলেট চেম্বার সভাপতি এটিএম সুয়েব, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মাহিউদ্দিন আহমদ সেলিম, সম্মিলিত নাট্য পরিষদের সভাপতি মিশফাক আহমদ চৌধুরী মিশু, সাধারণ সম্পাদক রজত কান্তি গুপ্ত, ইমজার সাধারণ সম্পাদক আনিস রহমান, বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন সিলেটের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল করিমসহ সিসিকের কাউন্সিলর ও কর্মকর্তারা সভায় অংশ নেন। 


© সমকাল ২০০৫ - ২০২১

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মুস্তাফিজ শফি । প্রকাশক : এ কে আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com