হাসপাতাল থেকে পালালেন হ্যান্ডকাপ পরা ২ আসামি

প্রকাশ: ৩১ ডিসেম্বর ২১ । ১৯:০৭ | আপডেট: ৩১ ডিসেম্বর ২১ । ১৯:০৭

সাটুরিয়া (মানিকগঞ্জ) প্রতিনিধি

হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন দুই আসামি

মানিকগঞ্জের সাটুরিয়ায় পুলিশ হেফাজতে থাকা অবস্থায় দুই আসামি হ্যান্ডকাপ নিয়ে পালিয়ে গেছেন বলে জানা গেছে। পালিয়ে যাওয়ার ৭২ ঘণ্টা পার হলেও তাদের এখনও গ্রেপ্তার করা সম্ভব হয়নি। গত মঙ্গলবার রাত তিনটার দিকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে এ ঘটনা ঘটে। ওই আসামিরা হাসাপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন।

দুই আসামি পালানোর ঘটনায় পাহারার দায়িত্বে থাকা দুই পুলিশ সদস্য রাকিব ও শহিদুল ইসলামকে প্রত্যাহার করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সাটুরিয়া থানার ওসি আশরাফুল আলম।

পালিয়ে যাওয়া আসামিরা হচ্ছেন- টাঙ্গাইল দেলদুয়ার উপজেলার এলাসিন এলাকার আঃ মজিদের ছেলে মো. শাহআলম ও একই এলাকার গাজনা গ্রামের আজমত আলীর ছেলে রাজিব মিয়া।

পুলিশ জানায়, গত মঙ্গলবার সন্ধ্যায় সাটুরিয়া উপজেলার ধানকোড়া এলাকা থেকে একটি মোটরসাইকেল চুরি করে পালিয়ে যাচ্ছিলেন শাহআলম ও রাজিব মিয়া। এ সময় সাহেবপাড়া এলাকায় একটি ভ্যানে মোটরসাইকেলটি ধাক্কা দেয়। এতে ভ্যানে থাকা শিশুসহ ৪ যাত্রী আহত হয়। পরে স্থানীয় এলাকাবাসী তাদের আটক করে গণধোলাই দেন। স্থানীয় বাসিন্দাদের গণধোলাইয়ের পর তাদের মাথা ও নাক ফেটে যায়। পরে পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে রাজিব ও শাহআলমকে তাদের উদ্ধার করে পুলিশের হেফাজতে নেয়। পুলিশ ওই আসামিদের সাটুরিয়া হাসপাতালে ভর্তি করে।

এ বিষয়ে সাটুরিয়া থানার ওসি আশরাফুল আলম বলেন, পাহারা রত দুই পুলিশ সদস্য প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বাইরে গেলে আসামিরা কৌশলে হ্যান্ডকাপসহ পালিয়ে যায়। ওই দুই পুলিশ সদস্য দায়িত্বে অবহেলা করার কারণে তাদের পুলিশ লাইনে প্রত্যাহার করা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, আসামিদের ধরতে চেষ্টা অব্যহত আছে।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২২

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মোজাম্মেল হোসেন । প্রকাশক : আবুল কালাম আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com