সিলেটে টিসিবির পণ্যের জন্য হাহাকার

গাজীপুরে পণ্য মিলল মুদি দোকানের গোডাউনে

প্রকাশ: ২২ মার্চ ২২ । ০০:০০ | আপডেট: ২২ মার্চ ২২ । ০০:০৯ | প্রিন্ট সংস্করণ

সিলেট ব্যুরো, গাজীপুর ও বিয়ানীবাজার প্রতিনিধি

টিসিবির গাড়ি কখন আসবে- সকাল থেকে সেই অপেক্ষায় নিম্ন আয়ের মানুষ। ছবিটি সিলেট নগরীর সোবহানীঘাট এলাকা থেকে সোমবার দুপুরে তোলা - সমকাল

সিলেটে ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশের (টিসিবি) পণ্যের জন্য হাহাকার শুরু হয়েছে। কার্ড নিয়েও অনেকে সময়মতো পণ্য পাচ্ছেন না। এমনকি বিভিন্ন স্থানে গিয়ে দেখা মিলছে না টিসিবির ট্রাকের। এ জন্য ডিলাররা দায়ী করছেন নতুন নিয়মকে। তারা বলছেন, নতুন নিয়মে নতুন করে ভোগান্তি শুরু হয়েছে। আগের নিয়মে থাকলে এ ধরনের হাহাকারের সৃষ্টি হতো না।

এখন প্যাকেট করতে অনেক সময় লাগে। তাই অনেকেই সময়মতো ট্রাক নিয়ে বের হতে পারছে না। সোমবার পণ্য কিনতে আসা উপকারভোগীদের হাতে হাতে কার্ড দেখা যায়। তবে তাদের অনেকেই ছিলেন বিমর্ষ। দিনভর অপেক্ষা করে পণ্য না পেয়ে চলে যান তারা। আবার অনেকে দাঁড়িয়ে থাকলেও ট্রাকের দেখা পাননি।


দুপুরে কিস্ফন ব্রিজের পাশে যান নগরীর তালতলা এলাকার বাসিন্দা আহমদ হোসেন। হাতে একটি কার্ড দেখা গেল তার। তিনি জানান, সকালে একবার খোঁজ নিয়ে জেনে গেছেন, দুপুরে টিসিবির ট্রাক আসবে। দুপুর ২টা পর্যন্ত কোনো ট্রাকের দেখা পাননি।

পাশেই দেখা গেল কাপড়ে মুখ ঢাকা এক নারীকে। তিনি একটি বেসরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক। খোলামেলা কথা বললেও তার অনুরোধ, পত্রিকায় যেন তার নাম দেওয়া না হয়। তিনি অভিযোগ করেন, কার্ড বিতরণে অনিয়ম করা হয়েছে। যারা অতিদরিদ্র তাদের অনেকেই পাননি। আর যারা মধ্যবিত্ত, তাদের পরিবারের কোনো খবরই নেওয়া হয়নি। মধ্যবিত্তদের জন্য একটা প্যাকেজ রাখা দরকার। যদি এটি থাকত তখন নিজে মুখ খোলা রেখেই নিতে পারতেন এ পণ্য।

মির্জাজাঙ্গাল এলাকায় গিয়ে দেখা যায় একই অবস্থা।

দক্ষিণ সুরমার সদর খাদ্যগুদামের সামনে গিয়ে দেখা যায় বেশকিছু ট্রাক ভেতরে রয়েছে। বাইরে কিছু লোক অপেক্ষা করছেন। তাদের অনেকের সঙ্গে কথা বলে জানা গেল, তারা টিসিবির পণ্য নিতে এসেছেন।

সিলেটের বিয়ানীবাজারে টিসিবির পণ্য নির্ধারিত ওজনের চেয়ে কম পাওয়ার অভিযোগে শেওলা খাদ্যগুদাম অবরোধ করা হয়। গতকাল শেওলা খাদ্যগুদাম এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরে উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) ঘটনাস্থলে গিয়ে অভিযোগের সত্যতা পাওয়ায় বিতরণ বন্ধ করে দেন।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আশিক নূর বলেন, বিষয়টি তদন্ত করা হবে এবং দ্রুত সময়ের মধ্যে নির্ধারিত ওজনে পণ্য বিতরণ শুরু করা হবে। এদিকে, গাজীপুরে টিসিবির পণ্য পাওয়া গেছে মুদি দোকানের গোডাউনে। মহানগরের বোর্ড বাজারের মা জেনারেল স্টোরের গোডাউনে টিসিবির মোড়কযুক্ত ৯২ লিটার সয়াবিন, ৯৮ কেজি চিনি ও ৯২ কেজি ডাল পাওয়া যায়। রোববার রাতে মহানগর পুলিশ এসব পণ্য জব্দ করে।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২২

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মোজাম্মেল হোসেন । প্রকাশক : আবুল কালাম আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com