আবাহনী ম্যাচকে প্লে অফ ফাইনাল হিসেবে দেখছে মোহনবাগান

প্রকাশ: ১৮ এপ্রিল ২২ । ২১:৫২ | আপডেট: ১৮ এপ্রিল ২২ । ২১:৫২

কলকাতা প্রতিনিধি

ছবি- এটিকে মোহনবাগান

এএফসি কাপের প্লে-অফ ম্যাচ সামনে রেখে দুই বাংলার ফুটবলাঙ্গন বেশ উত্তপ্ত। আগামীকাল সল্ট লেকে স্বাগতিক এটিকে মোহনবাগানের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশের ক্লাব আবাহনী লিমিটেড। প্রিলিমিনারি ম্যাচে শ্রীলঙ্কান ক্লাব ব্লু স্টারকে ৫-০ গোলে উড়িয়ে প্লে অফে এসেছে মোহনবাগান। তাই আত্মবিশ্বাসে ভরপুর ক্লাবটি। তবে খানিকটা সতর্ক অবস্থানে ক্লাবটি।

মোহনবাগান কোচ জুয়ান ফার্নান্দো আগেই বলেছিলেন, তিনি ম্যাচ ধরে এগোতে চান। ব্লুস্টারের বিরুদ্ধে বড় জয় তৃপ্তি দিলেও আত্মতুষ্ট হতে নারাজ তিনি। 

অধিনায়ক প্রীতম কোটালকে পাশে নিয়ে হেড কোচ বলেন, 'প্রতিপক্ষ হিসেবে বাংলাদেশের ক্লাব দলটি শক্তিশালী। ওদের খেলা আমরা দেখেছি। প্রতিপক্ষের কোনও বিশেষ একজন নয় পুরো দলকে নিয়েই চিন্তা করছি। তবে আমার ভাবনায় নিজের দলের শক্তি দুর্বলতা। গ্যালারিতে দর্শক সংখ্যা বাড়বে। পরের পর্বে যেতে হলে এই ম্যাচটি আমাদের ফাইনাল হিসেবে ধরে নিয়ে এগোতে হবে। দল হিসেবে আমাদের আরও ভালো খেলার ক্ষমতা রয়েছে। মঙ্গলবারের সন্ধ্যায় আমরা সেটাই চেষ্টা করব।'

কোচের সুরে সুর মেলালেন অধিনায়ক প্রীতম কোটালও। প্রতিপক্ষ ঢাকা আবাহনী নিয়ে সমীহর সুরে প্রীতম জানালেন, 'পরের পর্বে যেতে হলে আমাদের এই ম্যাচটি জিততে হবে।  সেদিক থেকে ফাইনাল খেলার মানসিকতা নিয়ে আমাদের নামতে হবে। গ্যালারিতে দর্শকদের উপস্থিতি সবসময় বাড়তি অনুপ্রেরণা। কারন ওরা দলের দ্বাদশ ব্যক্তি। তবে অচেনা প্রতিপক্ষ সবসসময় কঠিন প্রতিপক্ষ।'

আবাহনীর কোচ হিসেবে আছেন পর্তুগালের মারিও লেমোস, অন্যদিকে মোহনবাগের প্রধান কোচের দায়িত্বে স্পেনের জুয়ান ফার্নান্দো। তাই আগামীকালের আবাহনী-মোহনবাগানের ম্যাচটি বলা যায় স্প্যানিশ ফুটবল বুদ্ধি বনাম পর্তুগীজ ফুটবল বুদ্ধির দ্বৈরথ। মারিও লেমোস ও জুয়ান ফার্নান্দোর দ্বৈরথকে এভাবেই দেখছে দুই বাংলার ফুটবল ভক্তরা।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২২

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মোজাম্মেল হোসেন । প্রকাশক : আবুল কালাম আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৯১১০৩০৫৫৭, +৮৮০১৯১৫৬০৮৮১২ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com