উন্মুক্ত রেলক্রসিংয়ে প্রাণ গেল দুই বিদ্যুৎকর্মীর

প্রকাশ: ১০ মে ২২ । ০০:১০ | আপডেট: ১০ মে ২২ । ০০:১০

সরিষাবাড়ী (জামালপুর) প্রতিনিধি

প্রতীকী ছবি

জামালপুরের সরিষাবাড়ীতে উন্মুক্ত রেলক্রসিং পারাপারের সময় ট্রেনে কাটা পড়েছেন দুই মোটরসাইকেল আরোহী। সোমবার বিকেলে পৌরসভার সাতপোয়া জামতলা মোড়ে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহত আলী হাসান জামালপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির সরিষাবাড়ী জোনাল অফিসের মিটার টেস্টিং সুপারভাইজার ছিলেন। তার বাড়ি সিরাজগঞ্জের শাহজাদপুরের মোনাকষা গ্রামে। অপর নিহত সুলতান মাহমুদ একই অফিসের ইলেকট্রিশিয়ান ছিলেন। তিনি সরিষাবাড়ীর ডোয়াইল ইউনিয়নের বিলপাড় গ্রামের মুজিবুর রহমানের ছেলে।

জানা গেছে, সোমবার বিকেল ৩টার দিকে হাসান ও সুলতান মাঠপর্যায়ে কাজের জন্য মোটরসাইকেলে ডোয়াইল যাচ্ছিলেন। পথে জামতলা মোড়ে তাদের ধাক্কা দেয় ধলেশ্বরী এপপ্রেস ট্রেন। এতে তারা ছিটকে পড়েন। স্থানীয়রা উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেপে নিলে চিকিৎসক তাদের মৃত ঘোষণা করেন। এই রেলক্রসিংয়ে না আছে কোনো সিগন্যাল বাতি, না আছে ব্যারিকেডের ব্যবস্থা। এজন্য ট্রেন এলে কারও বোঝার কায়দা থাকে না।

পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির সরিষাবাড়ী জোনাল অফিসের এজিএম নুরুল হুদা বলেন, কর্মক্ষেত্রে যাওয়ার সময় হাসান ও সুলতান দুর্ঘটনার শিকার হন। ওই রেলক্রসিংয়ে মানুষকে সতর্ক করার নূ্যনতম ব্যবস্থা নিলেও হয়তো তাদের প্রাণ অকালেই ঝরে যেত না। সরিষাবাড়ী রেলওয়ে পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই মুজিবুল হক জানান, এ ঘটনায় কেউ অভিযোগ করেনি।

পৌর মেয়র মনির উদ্দিন বলেন, ক্রসিংগুলো সুরক্ষিত করার দায়িত্ব রেল কর্তৃপক্ষের। তাদের একাধিকবার বলার পরও ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। আরও একবার কথা বলব, তাতেও কাজ না হলে নাগরিকদের নিরাপত্তায় পৌরসভার পক্ষ থেকে পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

© সমকাল ২০০৫ - ২০২২

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মোজাম্মেল হোসেন । প্রকাশক : আবুল কালাম আজাদ

টাইমস মিডিয়া ভবন (৫ম তলা) | ৩৮৭ তেজগাঁও শিল্প এলাকা, ঢাকা - ১২০৮ । ফোন : ৫৫০২৯৮৩২-৩৮ | বিজ্ঞাপন : +৮৮০১৭১৪০৮০৩৭৮ | ই-মেইল: samakalad@gmail.com