সিলেট নগরীর নুরজাহান গ্র্যান্ড আবাসিক হোটেলে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে থাকা যুক্তরাজ্য প্রবাসী এক নারীকে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার রাতের ওই ঘটনায় ওই হোটেলের কর্মচারী শাহিন আহমদকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শুক্রবার বিকেলে শাহিনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। শাহিন হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলার অলদারকান্দি গ্রামের আবু তাহিদের ছেলে।

ওই নারীর অভিযোগে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর থেকে শাহিন মোবাইল ফোনে তাকে দফায় দফায় উত্ত্যক্ত করতে থাকেন। রাত সাড়ে ১১টার দিকে তিনি জোর করে তার কক্ষে ঢুকে ধস্তাধস্তি শুরু করেন। এ সময় তার চিৎকারে আশপাশের কক্ষের বাসিন্দারা এসে শাহিনকে আটক করেন। এরপর পুলিশ এসে তাকে থানায় নিয়ে যায়।

ওই নারী শুক্রবার দুপুরে শাহিনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন বলে জানিয়েছেন কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম আবু ফরহাদ।

জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার সকালে বাংলাদেশ বিমানের ফ্লাইটে যুক্তরাজ্য থেকে ৮৩ জন যাত্রী সিলেটে আসেন। এরপর তাদের সবাই জেলা প্রশাসন নির্ধারিত নগরীর বিভিন্ন হোটেলে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনের জন্য ওঠেন। এরমধ্যে নুরজাহান গ্র্যান্ড হোটেলে ওই নারীসহ ছয়জন উঠেছিলেন। ওই নারী যুক্তরাজ্য থেকে একাই এসেছেন।

মন্তব্য করুন