হেফাজতে ইসলামের তাণ্ডবের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগ। সোমবার স্থানীয় সময় রাত ৮টার দিকে নিউইয়র্কের বাঙালি অধ্যুষিত এলাকা জ্যাকসন হাটের ডাইভার সিটি প্লাজায় এ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

বিক্ষোভ সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন, যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জলিল, যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের সাবেক সভাপতি এবং যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক মিসবা আহমদ, যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক এবং যুক্তরাষ্ট্র আওয়ামী লীগের শিল্প ও বাণিজ্য বিষয়ক সম্পাদক মো. ফরিদ আলম ও ঢাকা উত্তরের সাংগঠনিক সম্পাদক শাখাওয়াৎ হোসেন চঞ্চল। বিক্ষোভ মিছিল পরিচালনা করেন যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক মো. সেবুল মিয়া ও রহিমুজ্জামান সুমন।

বক্তারা বলেন, হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশে ইসলামের কথা বলে যে বিশৃঙ্খলা করেছে, তার কারণ তারা বাংলাদেশকে একটি অকার্যকর বাংলাদেশ করতে চায়। হেফাজত মূলত জামায়াত বিএনপির এজেন্ডা বাস্তবায়ন করতে চায়। বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশের মানুষ যখন সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করছে, তখন হেফাজত বিভিন্ন জেলায় ধ্বংসাত্মক তাণ্ডব চালিয়েছে। তা থেকে প্রমাণ হয় মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তি জামায়াত বিএনপির প্রেতাত্মা হিসেবে কাজ করছে।

তারা বলেন, বাংলাদেশ যখন বিশ্বের বুকে মাথা উঁচু করে ধারাচ্ছে, তখন জামায়াত বিএনপির মদদদাতা হেফাজত বাংলাদেশের অগ্রগতি থামাতে চায়। কিন্তু বাংলাদেশের মানুষ তা হতে দেবে না। যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগ হেফাজতের এসব জ্বালাও পোড়াওয়ের নিন্দা জানাচ্ছে এবং আমরা বাংলাদেশ যুবলীগের সংগ্রামী চেয়ারম্যান শেখ ফজলে সামশ পরশ এবং সাধারণ সম্পাদক মইনুল হোসেন খান নিখিলের নেতৃত্বে এসব তাণ্ডব মোকাবিলা করব।

প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন যুক্তরাষ্ট্র যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক রহিমুজ্জামান সুমন, হেলিম উদ্দিন, সদস্য নুর ইসলাম, আব্দুল্লাহ আল রেজা (স্বপন), জাকির হোসেন, সফিক মিয়া, নিউইয়র্ক স্টেট যুবলীগের সভাপতি রবিউল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক সোয়েব আহমদ, মহানগর যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুর রহমান, নিউইয়র্ক স্টেট যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মিজানুর রহমান চৌধুরী, সদস্য সেলিম রেজা ও সাহাবুদ্দিন।

অন্যান্যের মধ্যে উপস্তিত ছিলেন, নিউইয়র্ক স্টেট যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক হুমায়ুন কবির, আল মামুন সরকার, সদস্য ইমরুল কয়েস, আ স ম খায়রুল সবুজ, আলাউদ্দিন, জাবেদ আহমদ, রিটন সরকার, রূপ চান তাহসিন আহমদ প্রমুখ।