করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ঝালকাঠির সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সানিয়া আক্তার। বুধবার বেলা ১১টার দিকে বরিশালের শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

সুপ্রিমকোর্টের মুখপাত্র ব্যারিস্টার মোহাম্মদ সাইফুর রহমান জানান, সাত মাসের অন্ত:সত্বা সানিয়া আক্তারের বয়স হয়েছিল ২৯ বছর। তার স্বামী কে এইচ এম ইমরানুর রহমান ঝালকাঠি জেলা ও দায়রা জজ আদালতের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট।

বিচারক সানিয়া আক্তারের মৃত্যুতে শোক জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন ও আইনমন্ত্রী আনিসুল হক শোক ও দু:খ প্রকাশ করেছেন। এছাড়া ঝালকাঠি-২ আসনের এমপি আওয়ামী লীগের প্রবীন নেতা আমির হোসেন আমু, আইনসচিব মো. গোলাম সারওয়ার, ঝালকাঠি জেলা ও দায়রা জজ মো. শহিদুল্লাহ, বাংলাদেশ জুডিশিয়াল সার্ভিস এসোসিয়েশন এবং জেলা আইনজীবী সমিতির পক্ষ থেকে শোক ও দু:খ প্রকাশ করা হয়।

গত ১২ জুলাই তার করোনাভাইরাস পরীক্ষায় পজেটিভ রিপোর্ট আসে। পরে তাকে শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বিচারক সোনিয়া আক্তারের অকাল মৃত্যুতে ঝালকাঠির বিচার অঙ্গণে শোকের ছায়া নেমে আসে।

১৯৯২ সালের ১ আগষ্ট নারায়ণগঞ্জের আড়াই হাজার উপজেলার হোগলাকান্দা গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন সানিয়া আক্তার। তিনি জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় থেকে আইনে স্নাতকোত্তর করে ২০১৮ সালের ১ মার্চ জুডিশিয়াল কর্মকর্তা হিসেবে যোগ দেন।

এর আগে গত বছরের ২৪ জুন লালমনিরহাটের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক (জেলা জজ) ফেরদৌস আহমেদ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।