কুয়েতের বৃহত্তম মিনা আল-আহমাদি তেল শোধনাগারে অগ্নিকাণ্ড ঘটেছে। সোমবারের এ ঘটনায় তেল শোধনাগারের বেশ কয়েকজন কর্মী আহত হয়েছেন। তবে শোধনাগারের কার্যক্রমে কোনো বিঘ্ন ঘটেনি বলে কুয়েত ন্যাশনাল পেট্রোলিয়াম কোম্পানির (কেএনপিসি) বরাতে জানা গেছে। খবর রয়টার্সের।

রাষ্ট্রায়ত্ত শোধনাগারটি জানিয়েছে, তাদের অ্যাটমোস্ম্ফোরিক রেসিডিউ ডিসালফুরাজেইশন (এআরডিএস) ইউনিটে আগুন লাগে। বিচ্ছিন্ন এই ইউনিটটিতে আগুন লাগার পর তা সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসা হয়।

একজন ঠিকাদারের মাধ্যমে নিয়োগ করা বেশ কয়েকজন কর্মী আগুনে সামান্য আহত হয়েছেন এবং কয়েকজন ধোঁয়ার কারণে অসুস্থ হয়ে পড়েছেন বলে কেএনপিসি জানিয়েছে। তাদের মধ্যে কয়েকজনকে শোধনাগারেই চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে এবং অন্যদের হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। তবে আহতদের অবস্থা স্থিতিশীল আছে বলে জানিয়েছে তারা।

কেএনপিসি তাদের টুইটার অ্যাকাউন্টে বলেছে, শোধনাগারের কার্যক্রম এবং রপ্তানি কার্যক্রমে আগুনের ঘটনায় কোনো প্রভাব পড়েনি। এ ছাড়া স্থানীয় বাজারজাতকরণ কার্যক্রমও বিঘ্নিত হয়নি এবং বিদ্যুৎ ও পানি মন্ত্রণালয়ের সরবরাহেও কোনো প্রভাব পড়েনি।