কোরবানি ঈদ উপলক্ষে দিনাজপুরের ফুলবাড়ী উপজেলার অন্যতম আকর্ষণ ‘দিনাজপুরের রাজা’ নামে ফ্রিজিয়ান জাতের একটি ষাঁড়ের দাম হাঁকা হয়েছে ১২ লাখ টাকা। 

প্রায় ১২০০ কেজি ওজনের ‘দিনাজপুরের রাজা’ নামেরএই বিশাল ষাঁড়টির গায়ের রঙ সাদাকালো মিশ্রিত। 

ভালো দাম পাওয়া আশায় প্রায় সাড়ে ৪ বছর ধরে নিজের সন্তানের মতো লালন পালন করে আসছেন মো. গোলাম মোস্তফা ও তার পরিবার। 

উপজেলার দৌলতপুর ইউনিয়নের মধ্যমপাড়া গ্রামের মো. আজগর আলীর ছেলে উপজেলার সিদ্দিসি উচ্চ বিদ্যালয়ের গণিতের শিক্ষক গোলাম মোস্তফা। শিক্ষকতার পাশাপাশি তিনি গরুর খামারও করেছেন।

গোলাম মোস্তফা জানান, দিনাজপুরের রাজাকে দেখাশোনা করেন দুজন লোক। প্রতিদিন তার খাবার তালিকায় থাকে প্রায় পাঁচ কেজি ভেজানো ছোলা,গমের ভুসি,মিষ্টি কুমড়া এবং সবুজ কাঁচা ঘাস।

গরম একদম সহ্য করতে পারে না ফ্রিজিয়ান জাতের এই ষাঁড়। তাই বিদ্যুৎ না থাকলেও গরুটির জন্য বিকল্প ব্যবস্থাও করা হয়েছে। 

প্রতিদিন তিনবার করে গোসল করাতে হয়। গোসলের পর আবার শুকনা কাপড় দিয়ে শরীরের পানি মুছে ফেলতে হয় যাতে ঠাণ্ডা না লেগে যায়।

গোলাম মোস্তফা বলেন, মাত্র সাড়ে ৪ বছরে আমি গরুটিকে কোরবানির জন্য উপযুক্ত করে তুলেছি। গরুর দাম যদিও ১২ লাখ টাকা নির্ধারণ করেছি, তবে কেউ কাছাকাছি দাম বললেও বিক্রি করে দেব।