ফ্রান্সে বিভিন্ন পর্যায়ে বাক, অনার্স এবং মাস্টার্স উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা দিয়েছে সামাজিক সংগঠন বাংলাদেশ কমিউনিটি ইন ফ্রান্স (বিসিএফ)। শনিবার প্যারিসের একটি অভিজাত মিলনায়তনে বাক পর্বে ১৪ জন, অনার্স পর্বে ৪ জন এবং মাস্টার্স পর্বে ৮ জন উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা ও ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।

বিসিএফ কর্তৃক পঞ্চমবারের মত এই আয়োজনে প্রধান অতিথি ছিলেন ইনালকো বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগের অধ্যাপক ডঃ ফিলিপ বেনোয়া। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন হাসনাত জাহান, ডাঃ উত্তম বড়ুয়া, এডভোকেট সাবিনা মিয়া, এডভোকেট ইমরান চৌধুরী, ইঞ্জিনিয়ার মাহবুব আলম এবং ডঃ শামীম আহমেদ।

ভায়োলিনের চমৎকার সুরে বাংলাদেশ এবং ফ্রান্সের জাতীয় সংগীত পরিবেশনের মাধ্যমে শুরু হয় অনুষ্ঠান। ভায়োলিনে মুগ্ধকর সুর তোলেন অরশী বড়ুয়া।

সাংবাদিক ইমরান মাহমুদ এবং ফাতেমা-তুজ-জোহরা এর যৌথ সঞ্চালনায় এই অনুষ্ঠানে বাক পাস করা ৮ জন শিক্ষার্থীকে ক্রেস্ট প্রদান করা হয়। তারা হলো, মোহাম্মদ রহমান, নিবিড় হোসেন, আদিল আহনাফ খান ,দাস সৌরভ, আহমেদ সুজন, মাদাম কয়েছ, রোসানা ফারুক ,আফসানা খানম, মিয়া লাবিব, মেহজাবীন আলম এবং প্রজয় বড়ুয়া। এদের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন যথাক্রমে এডভোকেট সাবিনা মিয়া, এডভোকেট ইমরান চৌধুরী এবং ইঞ্জিনিয়ার মাহবুব আলম।

অনার্স পর্বে ক্রেস্ট প্রদান করা হয় মোহাম্মদ মিকায়েল, দাস শান্ত, খান আনিন ,আলম শাহীনকে। ক্রেস্ট প্রদান করেন ডাঃ উত্তম বড়ুয়া এবং ডাঃ হাবীবা জেসমিন।

মাস্টার্স পর্বে মোট ৮ জনকে ক্রেস্ট প্রদান করা হয়। তারা হলো, সজিব সালেক আহমেদ, প্রিয়তি সাদিয়া আক্তার, আলম রোজানা, হক মোহাম্মদ মাহফুজুল, , দাস শুভ, খান মাজহারুল, নাজমীন নাহার এবং মাস্টার্স শেষ করে বার পরীক্ষায়ও পাস করা এডভোকেট মোহাম্মদ হেলাল আকাশ।

মাস্টার্স পাস করা শিক্ষার্থীদের হাতে ক্রেস্ট তুলে দেন ডঃ ফিলিপ বেনোয়া, হাসনাত জাহান এবং ডঃ শামীম আহমেদ।

অনুষ্ঠানে ফ্রান্সে পেশা ক্ষেত্রে বিশেষ অবদান রাখার জন্য ডাঃ উত্তম বড়ুয়া, এডভোকেট সাবিনা মিয়া এবং এডভোকেট ইমরান চৌধুরীকে বিশেষ ক্রেস্ট প্রদান করা হয়।

অনুষ্ঠানে বিসিএফ এর পক্ষ থেকে ফ্রান্সে বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশিকে কাজের ব্যবস্থা করার জন্য বিসিএফ এক্সিকিউটিভ মেম্বার ইমরান হোসেন এবং তার নেটওয়ার্ককে পুরস্কৃত করা হয়। এই নেটওয়ার্কে প্রায় ১০০ ব্যক্তি রয়েছে যারা বিপুলসংখ্যক চাকরির ব্যবস্থা করেছেন।

বিসিএফ সহসভাপতি মোজাম্মেল হোসেন এর প্রারম্ভিক বক্তব্যের মাধ্যমে শুরু হয়। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন বিসিএফ প্রধান এমডি নুর।

অনুষ্ঠানের দ্বিতীয়পর্বে ছিলো মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এই পর্ব পরিচালনা করেন রানা আহমেদ। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন সোমা দাস, ইমতিয়াজ রনি, মৌসুমি চক্রবর্তী, রাজীব এবং শান্ত। নৃত্য পরিবেশন করে শরীফুল ইসলাম, পম্মা রয়, দেবশ্রী চ্যাটার্জী।

অনুষ্ঠানে ফ্রান্সে বসবাসরত বিপুল সংখ্যক বাংলাদেশি পরিবার ও কমিউনিটির নানাস্তরের মানুষ উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য, এই বর্ণাঢ্য আয়োজনটি ২০১৭ থেকে ধারাবাহিকভাবে বাংলাদেশ কমিউনিটি ইন ফ্রান্স (বিসিএফ ) করে আসছে।