ঢাকা শনিবার, ২৫ মে ২০২৪

ক্যালগেরির বিশাল বাজেটের ১০৮তম স্টাম্পপিড বাতিল

ক্যালগেরির বিশাল বাজেটের ১০৮তম স্টাম্পপিড বাতিল

আহসান রাজীব বুলবুল, কানাডা

প্রকাশ: ০৫ জুলাই ২০২০ | ০০:১৮

প্রতি বছরের জুলাই মাসে আলোকসজ্জা আর লোকে-লোকারণ্য থাকে কানাডার আলবার্টার ক্যালগেরি শহর। ১ জুলাই থেকে ১০ জুলাই পর্যন্ত শুরু হওয়া ১০ দিনব্যাপী এই ইভেন্টে হাজির হন বিশ্বের বিভিন্ন স্থান থেকে পর্যটকরা। কাউবয় খ্যাত এই শহরটি মেতে ওঠে তার নিজস্ব অবয়বে। পরিপূর্ণ থাকে ক্যালগেরির হোটেলের সিটগুলো। প্রাণের স্পন্দন আর বিশ্বের বিভিন্ন দেশের মানুষের লোকে-লোকারণ্য মিলনমেলার এক কেন্দ্রবিন্দুতে যোগ দেন প্রবাসী বাঙালিরাও। মাল্টিকালচারালিজমের কানাডার বিভিন্ন কমিউনিটির বিভিন্ন কালচার বিভিন্ন অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তুলে ধরা হয় এই ইভেন্ট। এরমধ্য দিয়ে পরিণত হয় অন্যরকম এক মিলন মেলার।  কিন্তু এ বছর ছিল সম্পূর্ণ ব্যাতিক্রম। করোনাভাইরাস স্তব্ধ করে দিয়েছে গোটা বিশ্বকে, সেই সাথে ক্যালগেরির স্টাম্পপিডকে করেছে জনশূন্য।

১০৮তম ক্যালগারি স্ট্যাম্প পিডের  স্থানীয় দর্শনার্থীদের জন্য আতশবাজির ব্যবস্থা ছিল, কিন্তু সেটা ছিল সেখানে উপস্থিত না হয়ে উপভোগ করার জন্য।

কোভিড-১৯এর  প্রাক্কালে এপ্রিল মাসে ক্যালগেরি স্ট্যাম্প   পিড বাতিল করা হয়। বাতিল ঘোষণার পর থেকে ক্যালগেরি স্টাম্প পিড  পরিচালনা পর্ষদ নগরীকে চাঙ্গা রাখতে 'কমিউনিটির চেতনা বাতিল হতে পারে না' এই লক্ষ্যে কাজ  করতে থাকে।

ক্যালগরির স্থানীয় গণমাধ্যম 'ক্যালগেরি হেরাল্ড' জানিয়েছে, প্রতি বছর ১০ দিনের ইভেন্টে স্ট্যাম্পেড স্থানীয় ও প্রাদেশিক অর্থনীতিকে  অগণিত বাণিজ্য অনুষ্ঠান, বিবাহ এবং কনসার্টের মাধ্যমে ৫৪০ মিলিয়ন ডলার দেয়  যা স্ট্যাম্পেড মাঠে ব্যয় করা হয়। 

স্ট্যাম্পেড বোর্ডের সভাপতি ডানা পিয়ার্স বলেন, এই জুলাইতে ক্যালগরিতে একটি শূন্যতা থাকবে।

ক্যালগেরি বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক সহযোগী ডিন, ইলেকট্রিকাল এন্ড কমপিউটার ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের

প্রফেসর ড. আনিস হক বলেন, স্ট্যাম্পিড ব্রেকফাস্ট ক্যালগেরিবাসীদের এক বিশেষ আকর্ষণ। শহরের ছোট বড় বিভিন্ন জায়গাতে ভোর বেলা থেকে দীর্ঘ লাইন শুরু হয়। প্রাদেশিক সরকার প্রধান থেকে শুরু করে, সিটি মেয়র, এবং নির্বাচিত প্রতিনিধিরা শহরের বিভিন্ন স্থানে নিজ হাতে এই ব্রেকফাস্ট জনগণকে পরিবেশন করেন। কোনো কোনো স্থানে ঘণ্টার পর ঘণ্টা লাইনে অপেক্ষা করতে হয়। ক্যালগেরি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান স্টাম্পিড ব্রেকফাস্টে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রেসিডেন্ট নিজে পরিবেশন করেন। এবার ভীষণভাবে মিস করছি জমজমাট কাউবয় পরিবেশে আধা কিলোমিটার লাইনে দাঁড়িয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের সেই ব্রেকফাস্ট।

বিশিষ্ট কলামিস্ট আব্দুল্লা রফিক বলেন, এ বছর করোনার প্রার্দুভাবে পৃথিবীর সবচেয়ে বড় রোডিও শো ক্যালগেরি স্টাম্পিড হচ্ছে না যা ক্যালগেরিবাসির জন্যে বেদনাদায়ক। যেখানে এই সময় সারা পৃথিবী থেকে কাউবয়দের আনাগোনায় পুরো শহর মুখরিত থাকার কথা। সেখানে বিরাজ করছে শুনশান নীরবতা। আশাকরি আগামী বছর পূর্ণ উদ্যোমে আবারো রোডিও শো ফিরবে।

আরও পড়ুন

×