সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম ও তার কর্মীদের ওপর হামলার অভিযোগ উঠেছে।

খোরশেদ আলমের অভিযোগ, বর্তমান চেয়ারম্যান হেলাল উদ্দীন তার কর্মীরা বুধবার সকাল ৯টার দিকে উপজেলার কয়ড়া ইউনিয়ন পরিষদ এলাকায় এই হামলা চালায়।

এ ব্যাপারে স্বতন্ত্র প্রার্থী বীর মুক্তিযোদ্ধা খোরশেদ আলম বলেন, বুধবার সকালে  তিনি তার লোকজনসহ মানিকদহ গ্রামে নির্বাচনী প্রচার করছিলেন। এ সময় বর্তমান চেয়ারম্যান ও আওয়ামী লীগ মনোনীত চেয়ারম্যান প্রার্থী হেলাল উদ্দিন ও তার কর্মীরা হামলা চালায়। এতে তিনি এবং তার পাঁচ কর্মী আহত হন। বিষয়টি উল্লাপাড়া থানা পুলিশকে অবহিত করা হয়েছে। মামলার প্রস্তুতি চলছে।

তবে হামলার অভিযোগ অস্বীকার করেছেন হেলাল উদ্দীন। তিনি বলেন, খোরশেদ আলম নির্বাচনে তার (খোরশেদ) প্রতি জনগণের সহানুভূতি আদায় ও তার প্রচারণাকে বাধাগ্রস্ত করতেই এমন অভিযোগ করেছেন।

উল্লাপাড়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হুমায়ুন কবির জানান, হামলার খবর পেয়ে তিনি দ্রুত ঘটনাস্থলে যান এবং পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন। এ ঘটনায় এখনও মামলা হয়নি।