শত্রুতার বিষে গেল হাজার হাঁসের প্রাণ

প্রকাশ: ০৬ অক্টোবর ২০১৯      

মিঠাপুকুর (রংপুর) প্রতিনিধি

ফাইল ছবি

জমি নিয়ে ছিল বিরোধ। তবে সেই শত্রুতার বলি হলো নিরীহ হাঁসগুলো। প্রতিপক্ষের দেওয়া বিষে এক হাজারেরও বেশি হাঁস মারা গেছে সহোদর খামারির। 

এ ঘটনা ঘটেছে রংপুরের মিঠাপুকুর উপজেলার ফরিদপুর গ্রামের গংধরাপাড়ায়। ক্ষতিগ্রস্ত দুই খামারি হচ্ছেন গংধরাপাড়ার মোকলেছার রহমানের ছেলে নুরুল ইসলাম সাজু ও আনারুল ইসলাম। সর্বস্ব হারিয়ে থানায় মামলা করেছেন দুই ভাই।

ক্ষতিগ্রস্ত দুই ভাই জানান, বাড়ির পাশে চতলার মাঠে পৈতৃক সম্পত্তির ওপর নিজেদের সর্বস্ব দিয়ে অনেক পরিশ্রম আর কষ্টে একটি হাঁসের খামার গড়ে তুলেছিলেন তারা। খামারে এক হাজার পাঁচটি হাঁস ছিল। এর মধ্যে ৯০০ হাঁস প্রতিদিন ডিম দিচ্ছিল। তাদের অভিযোগ, প্রতিবেশী সফি মিয়া ও করিম মিয়ার সঙ্গে তাদের জমির সীমানা নিয়ে বিরোধ রয়েছে। এরই জের ধরে গত শুক্রবার রাতে সফি মিয়া, করিম মিয়াসহ আট থেকে ১০ লোক হাঁসের খামারে ঢুকে খাবারে বিষ ঢেলে দেয়। এ সময় নৈশপ্রহরী সুনীল চন্দ্র টর্চলাইটের আলোয় সফি মিয়া, করিম মিয়াসহ ৮-১০ জনকে দেখতে পান। 

নৈশপ্রহরীর চিৎকারে আশপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে এগিয়ে এলে তারা পালিয়ে যায়। বিষ দেওয়ার পর খামারের হাঁসগুলো কিছুক্ষণের মধ্যেই ছটফট করতে করতে মারা যায়। এ কারণে তিন লাখ টাকার বেশি আর্থিক ক্ষতি হয়েছে।

দুই ভাই বলেন, ভবিষ্যতের সুখে আশায় খামার গড়ে তুলেছিলাম। কী দোষ করেছিল হাঁসগুলো! এভাবে তাদের প্রাণ দিতে হলো। এ ঘটনায় নুরুল ইসলাম বাদী হয়ে সফি, করিমসহ অজ্ঞাতনামা ৮-১০ জনকে অভিযুক্ত করে থানায় অভিযোগ দিয়েছেন।

এ ব্যাপারে মিঠাপুকুর থানায় ওসি জাফর আলী বিশ্বাস বলেন, অভিযোগের তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।